Apps লুকানো apps | এন্ড্রয়েড মোবাইলে কিভাবে অ্যাপ লুকানো যায় | How to hide Android App

অ্যান্ড্রয়েড মোবাইলে কিভাবে অ্যাপ লুকানো যায় : How to Hide Apps in Android আপনারা অনেকেই জানতে চান যে, কিভাবে এন্ড্রয়েড মোবাইল দিয়ে অ্যাপ লুকানো যায়।

Apps লুকানো apps | এন্ড্রয়েড মোবাইলে কিভাবে অ্যাপ লুকানো যায় | How to hide Android App
Apps লুকানো apps

তো যদি আপনি সত্যিকার অর্থেই আপনার অ্যান্ড্রয়েড ফোনে থাকা কোন অ্যাপকে লুকিয়ে রাখতে চান। সেটিংসে অ্যাপ ছাড়া অ্যান্ড্রয়েডে অ্যাপস কীভাবে লুকাবেন  জানতে চান।

তাহলে আজকের এই আর্টিকেল টি আপনার জন্য অনেক বেশি প্রয়োজনীয়। কারণ এই গুরুত্বপূর্ণ আর্টিকেল এর মাধ্যমে আমি আপনাকে জানিয়ে দেয়ার চেষ্টা করব। 

কিভাবে আপনার মোবাইলে কিছু অ্যাপ লুকাবেন অথবা কিভাবে আপনি আপনার প্রয়োজনীয় Apps লুকানো apps  নিয়ে জানতে পারবেন। 

আর যদি জানতে চান কিভাবে অ্যাপ লুকানো যায় এন্ড্রয়েড ফোনে  তাহলে এখান থেকে সহজ ভাবে জেনে নিতে পারবেন। সেজন্য চেষ্টা করবেন আজকের পুরো আর্টিকেল টি মনোযোগ সহকারে পড়ার।

এবং আমি যথাযথ ভাবে চেষ্টা করব আজকের আর্টিকেলের মাধ্যমে খুব সহজ ভাবে এই বিষয় টি আলোচনা করার।

দেখুন আমরা যারা স্মার্টফোন ব্যবহার করি। তাদের সেই ফোনে মধ্যে বিভিন্ন প্রকারের ব্যক্তিগত অ্যাপস কিংবা ফাইল থাকে। যে গুলো মূলত অন্যান্য কোন ব্যক্তির সাথে শেয়ার করা যায় না।

আর সে কারণে মূলত আমরা চাই যেন, অন্য কোন ব্যক্তি আমাদের সেই ব্যক্তিগত ফাইল কিংবা অ্যাপ গুলো ওপেন করতে না পারে।

আর সেজন্য মূলত আমাদের ফোনের কোনও অ্যাপ লুকিয়ে রাখা প্রয়োজন হয় বা লুকিয়ে রাখতে হয়।

কিন্তু আমাদের মধ্যে এমন অনেক মানুষ আছেন। যারা এখন পর্যন্ত জানে না যে, কিভাবে নিজের স্মার্টফোনে থাকা অ্যাপ কিংবা ফাইল কে লুকিয়ে রাখা যায়।

তো যে মানুষ গুলো আসলে এই বিষয় টি সম্পর্কে কোন কিছুই জানে না। সে মানুষ গুলো কে উদ্দেশ্য করে আজকের এই আর্টিকেল টি লেখা হয়েছে।

কারন আজকের এই আর্টিকেলের মাধ্যমে আমি আপনাকে অ্যাপ লুকিয়ে রাখার উপায় সম্পর্কে জানিয়ে দেয়ার চেষ্টা করব।

এবং আপনি যদি এই উপায় গুলো কে সঠিক ভাবে অনুসরণ করতে পারেন।

তাহলে আপনি আপনার স্মার্টফোনের মধ্যে থাকা যেকোনো ধরনের ফাইল কিংবা অ্যাপ কে খুব সহজেই লুকিয়ে রাখতে পারবেন।

আপনার জন্য আরোও লেখা আছে…

এর পাশাপাশি আপনার পারমিশন ছাড়া অন্য কোন ব্যক্তি আপনার সেই লুকিয়ে রাখা ফাইল কিংবা অ্যাপ গুলো কে কোনভাবেই ওপেন করতে পারবে না।

তো এই বিষয় গুলো জানতে হলে আপনাকে অবশ্যই নিচের আলোচিত আলোচনা গুলো মনোযোগ দিয়ে পড়তে হবে। তাহলে আর দেরি না করে চলুন সরাসরি সেই মূল আলোচনা তে ফিরে যাওয়া যাক।

কিভাবে অ্যাপ লুকানো যায় ?  

অ্যান্ড্রয়েড ফোনে অ্যাপ লক করার নিয়ম কি? বর্তমান সময়ে আপনি এমন অনেক ধরনের অ্যাপ সম্পর্কে জানতে পারবেন।

যে গুলোর মাধ্যমে আপনি আপনার স্মার্টফোনের মধ্যে থাকা বিভিন্ন প্রকারের ফাইল কিংবা অ্যাপ কে লুকিয়ে রাখতে পারবেন।

এর পাশাপাশি যখন আপনি আপনার সেই ব্যক্তিগত ফাইল কিংবা অ্যাপ গুলো কে লুকিয়ে রাখবেন। তখন আপনি চাইলে পাসওয়ার্ড দিয়ে প্রটেক্ট করে রাখতে পারবেন।

এবং পরবর্তী সময়ে কেউ যদি আপনার সেই লুকিয়ে রাখা ফাইল কিংবা অ্যাপ গুলো কে ওপেন করতে চায়। তখন অবশ্যই পাসওয়ার্ড এর প্রয়োজন পড়বে।

অর্থাৎ আপনি ছাড়া সেই লুকিয়ে রাখা অ্যাপ গুলো কে আর কেউ ওপেন করতে পারবে না। তবে আপনি যদি আপনার স্মার্ট ফোনের মধ্যে এই কাজ টি করতে চান।

তাহলে অবশ্যই আপনাকে অ্যাপ লুকিয়ে রাখা অ্যাপ গুলো সম্পর্কে জানতে হবে। আর এবার আমি আপনাকে সেই অ্যাপ গুলো সম্পর্কে জানিয়ে দেয়ার চেষ্টা করব।

এবং আপনি যদি আপনার ব্যক্তিগত ফাইল কিংবা অ্যাপ লুকিয়ে রাখতে চান। তাহলে অবশ্যই আপনাকে এই আলোচনায় আলোচিত অ্যাপ গুলো কে ব্যবহার করতে হবে।

যার মাধ্যমে আপনি আপনার স্মার্টফোনের মধ্যে থাকা যে কোনো ধরনের ফাইল কে লুকিয়ে রাখতে পারবেন।

এবং প্রয়োজন হলে আপনি আপনার স্মার্টফোনের মধ্যে থাকা যে কোনো ধরনের অ্যাপ কে লুকিয়ে রাখতে পারবেন।

অ্যান্ড্রয়েড মোবাইলে অ্যাপ লুকানোর অ্যাপ

এন্ড্রয়েড মোবাইলের অ্যাপস লক করার নিয়ম কি। আপনি যদি গুগলে কিংবা গুগল প্লে স্টোরে গিয়ে Hide Apps in Android লিখে সার্চ করেন।

তাহলে আপনার সামনে এমন অনেক ধরনের অ্যাপ এর লিস্ট চলে আসবে।

যে এপস গুলোর মাধ্যমে আপনি আপনার স্মার্ট ফোনের মধ্যে থাকা বিভিন্ন ধরনের অ্যাপ কিংবা ফাইলকে লুকিয়ে রাখতে পারবেন।

তবে সেখান থেকে সব গুলো অ্যাপ সঠিক ভাবে কাজ করবে, এটার কোন গ্যারান্টি নেই।

এন্ড্রয়েড মোবাইলে কিভাবে অ্যাপ লুকানো যায় এই রকম অনেক এপ রয়েছে যেগুলো শুধুমাত্র আপনার ফোনে বিজ্ঞাপন দেখানো ছাড়া আর কোন কাজ করতে পারবে না।

তবে এবার আমি আপনাকে বেশ কিছু জেনুইন অ্যাপস এর সাথে পরিচয় করিয়ে দেয়ার চেষ্টা করব। যে গুলোর মাধ্যমে একটি স্মার্টফোনের অ্যাপ কে লুকিয়ে রাখা সম্ভব। যেমন: 

App Hider (Hide Apps & Photos)

যদি আপনি আপনার স্মার্ট ফোনে থাকা অ্যাপ লুকিয়ে রাখার কোন অ্যাপ খুঁজে থাকেন। তাহলে আমি সর্বপ্রথম আপনাকে এই অ্যাপসের কথা বলব।

মূলত এই অ্যাপসের মাধ্যমে আপনি শুধুমাত্র আপনার স্মার্টফোনের মত থাকা নির্দিষ্ট কোন অ্যাপস কে লুকিয়ে রাখতে পারবেন না।

এর পাশাপাশি আপনি আরো অনেক রকমের ফিচার দেখতে পারবেন। যেমন, আপনি যখন এই অ্যাপস কে আপনার স্মার্টফোনের মধ্যে এ ইন্সটল করবেন।

তখন আপনি এর সাহায্যে বিভিন্ন ধরনের সোশ্যাল মিডিয়া গুলো ব্যবহার করতে পারবেন। যেমন, আপনি চাইলে ফেসবুক মেসেঞ্জার ব্যবহার করতে পারবেন।

আবার আপনি চাইলে হোয়াটসঅ্যাপ কিংবা ইন্সটাগ্রাম এর মত সোশ্যাল মিডিয়া গুলো কে এই অ্যাপসটির সাহায্য ব্যবহার করতে পারবেন।

এছাড়া বিভিন্ন সময় আমাদের একই অ্যাপস কে ভিন্ন ভিন্ন একাউন্ট থেকে ব্যবহার করার প্রয়োজন হয়ে থাকে। তো এই কাজটি আপনি খুব সহজেই করতে পারবেন।

যদি আপনি এই অ্যাপস কে ব্যবহার করেন। কারণ এর মধ্যে আপনি অ্যাপ ক্লোন করার একটি জনপ্রিয় ফিচার দেখতে পারবেন। যার মাধ্যমে আপনি একই অ্যাপস কে একাধিক অ্যাকাউন্ট দিয়ে ব্যবহার করতে পারবেন।

এর পাশাপাশি আপনার স্মার্টফোনের ভেতরে থাকা বিভিন্ন ধরনের ফাইল কে হাইড রাখতে পারবেন।

যেমন, অডিও ফাইল, ভিডিও ফাইল কিংবা যে কোনো ধরনের ফটো কে হাইড করে রেখে দিতে পারবেন।

এখানে ক্লিক করে App Hider: Hide Apps বা প্লেস্টোর থেকেও এপটি ডাউনলোড করে নিতে পারবেন।

আর অবাক করার মত বিষয় হলো, এতসব ফিচার সমৃদ্ধ অ্যাপ টি আপনি একবারেই বিনামূল্যে ব্যবহার করতে পারবেন।

App Hider Lite

আজকের আর্টিকেলে আলোচিত অন্যান্য সব গুলো অ্যাপ এর চাইতে অন্যতম একটি অ্যাপ হলো App Hider Lite. যেহেতু আমরা আমাদের স্মার্টফোন দিয়ে ইন্টারনেট ব্যবহার করি।

সেহেতু আমাদের স্মার্টফোনে বিভিন্ন প্রকারের অ্যাপস ইনস্টল করা থাকে। যেমন, facebook, youtube, whatsapp, instagram ইত্যাদি।

আপনি আরোও দেখতে পারেন…

তো আপনি চাইলে এই অ্যাপস এর মাধ্যমে সকল প্রকার অ্যাপস কে লুকিয়ে রাখতে পারবেন। এবং এইসব কাজের পাশাপাশি আপনি আপনার স্মার্টফোনের ভেতরে থাকা বিভিন্ন ধরনের অ্যাপ কে ক্লোন করতে পারবেন।

যার মাধ্যমে আপনি একই অ্যাপস ভিন্ন ভিন্ন পদ্ধতি তে ব্যবহার করতে পারবেন।

তো আপনি যদি এই অ্যাপ টি ব্যবহার করতে চান। তাহলে আপনাকে সরাসরি গুগল প্লে স্টোরে যেতে হবে।

এবং গুগল প্লে স্টোরে যাওয়ার পরে আপনি App Hider Lite লিখে সার্চ করবেন। আর সেখান থেকে আপনি সরাসরি উক্ত অ্যাপ লুকানোর অ্যাপ টি ডাউনলোড করতে পারবেন।

এবং পরবর্তী সময়ে আপনার ফোনে ইন্সটল করার পরে আপনি উক্ত অ্যাপ এর মধ্যে থাকা সকল প্রকার ফিচার ব্যবহার করতে পারবেন।

Dialer Lock (AppHider)

আপনি যদি আপনার ফোনের গোপনীয়তা রক্ষা করতে চান। তাহলে উক্ত অ্যাপ টি আপনার জন্য অনেক বেশি হেল্পফুল হবে।

মূলত আপনি যদি এই অ্যাপস কে আপনার ফোনের মধ্যে ইন্সটল করে রাখেন। তাহলে আপনি আপনার স্মার্টফোন এর মধ্যে থাকা বিভিন্ন ধরনের অ্যাপস কিংবা ফাইল কে লুকিয়ে রাখতে পারবেন।

আর আপনি ছাড়া সেই লুকিয়ে রাখা অ্যাপ গুলো কে আর অন্য কেউ ব্যবহার করতে পারবে না। এর পাশাপাশি আপনার ফোনের মধ্যে যেসব হিডেন ইন্টারফেস থাকবে।

সে গুলো আপনি উক্ত অ্যাপসের মাধ্যমে দেখতে পারবেন। আর এসব সুবিধা ভোগ করার জন্য অবশ্যই আপনাকে উক্ত অ্যাপস টি ডাউনলোড করার পরে আপনার ফোনে ইন্সটল করে নিতে হবে।

প্লে স্টোরে আপনি Dialer Lock-AppHider লিখে সার্চ আপনি সরাসরি উক্ত অ্যাপ লুকানোর অ্যাপ টি ডাউনলোড করতে পারবেন।

App Hider: Hide Apps

যখন আপনি আপনার স্মার্টফোনের ভিতরে থাকা কোন ফাইল বা অ্যাপ লুকিয়ে রাখার জন্য App Hider: Hide Apps কে ব্যবহার করবেন।

তখন আপনি চমৎকার কিছু ফিচার দেখতে পারবেন। যেমন, এই অ্যাপটির সাহায্য আপনি ক্যালকুলেটর এর মধ্যে আপনার প্রয়োজনীয় ফাইল গুলো কে লুকিয়ে রাখতে পারবেন।

এবং যখন আপনি আপনার এই ফাইল গুলো কে লুকিয়ে রাখবেন। তখন আপনি পাসওয়ার্ড দিয়ে প্রোটেক্ট রাখতে পারবেন।

এর ফলে পরবর্তী সময়ে যদি আপনার ফোনটি অন্য কারো হাতে যায়। এবং তারা যদি আপনার লুকিয়ে রাখা ফাইল কিংবা অ্যাপ দেখতে চায়।

তাহলে অবশ্যই তাদের কে পাসওয়ার্ড দিতে হবে। আর যতক্ষণ না সেই মানুষ গুলো আপনার পাসওয়ার্ড সম্পর্কে জানতে পারবে। ততক্ষণ পর্যন্ত তারা এই অ্যাপস টি ওপেন করতে পারবে না।

App Hider (Smart Store)

মনে করুন, আপনার দুইটি বিকাশ একাউন্ট আছে। এবং আমরা জানি যে একটি ফোনের মধ্যে শুধুমাত্র একটি বিকাশ ব্যবহার করা যায়।

সেক্ষেত্রে আপনি যদি আপনার একটি ফোনের মাধ্যমে একবার একাধিক বিকাশ অ্যাপ ব্যবহার করতে চান। তাহলে আপনার জন্য উপযুক্ত একটি অ্যাপ হবে App Hider (Smart Store).

কারণ এই অ্যাপের মধ্যে আপনি অ্যাপ ক্লোন করার অদ্ভুত ক্ষমতা সম্পন্ন একটি ফিচার দেখতে পারবেন। যার মাধ্যমে আপনি একই অ্যাপ কে একাধিক বার আপনার ফোনের মধ্যে ইন্সটল করে রাখতে পারবেন।

এর পাশাপাশি উক্ত অ্যাপ এর মাধ্যমে আপনি আপনার স্মার্ট ফোনের ভেতরে থাকা বিভিন্ন ধরনের অ্যাপস কিংবা ফাইল কে লুকিয়ে রাখতে পারবেন।

আর যখন আপনি এই কাজ টি করবেন। তখন আপনি আপনার ফিঙ্গারপ্রিন্ট অথবা পাসওয়ার্ড দিয়ে প্রোটেক্ট রাখতে পারবেন।

যাতে করে আপনি ছাড়া কিংবা আপনার পারমিশন ছাড়া অন্য কেউ সেই অ্যাপ টি ওপেন করতে পারবে না। এবং আপনার লুকিয়ে রাখা কোন অ্যাপ কিংবা ফাইল কে দেখতে পারবে না।

Hide Photos, Video & App Lock

যদি এই অ্যাপটি কে আপনি আপনার ফোনে ইন্সটল করে রাখেন। তাহলে এই অ্যাপটি মূলত একটি অডিও ম্যানেজার হিসেবে আপনার ফোনের মধ্যে লুকায়িত থাকবে।

এবং উক্ত অ্যাপস এর মধ্যে আপনি আপনার প্রয়োজনীয় অ্যাপ কিংবা ব্যক্তিগত ফাইল কে লুকিয়ে রাখতে পারবেন। আর আপনি মজার বিষয় হলো আপনি যদি এই অ্যাপ টি ওপেন করতে চান।

তাহলে আপনাকে এই অ্যাপের আইকন এর উপর লং প্রেস করে থাকতে হবে। অর্থাৎ আপনি একবার ক্লিক করে উক্ত এপটি ওপেন করতে পারবেন না।

আর সে কারণে অন্য কোন ব্যক্তি কোন ভাবেই এই Hide Photos, Video and App Lock অ্যাপস কে ওপেন করতে পারবে না।

যার ফলে আপনার ব্যক্তিগত অ্যাপস কিংবা ফাইল গুলো এর মধ্যে সুরক্ষিত থাকবে।

Notepad Vault (Apphider)

আজকের আর্টিকেলে আলোচিত সর্বশেষ অ্যাপ হাইড করার অ্যাপ হল, Notepad Vault (Apphider).

যার মাধ্যমে আপনি আপনার যে কোনো ধরনের অ্যাপ কিংবা বিভিন্ন ধরনের ফাইল কে লুকিয়ে রাখতে পারবেন।

মূলত আপনার যেসব পিকচার, অডিও কিংবা ভিডিও থাকবে। সে গুলো কে আপনি উক্ত অ্যাপ এর মাধ্যমে লুকিয়ে রাখতে পারবেন।

আপনি আরোও পড়তে পারেন…

এবং পরবর্তী সময়ে আপনি আপনার প্রয়োজন অনুসারে সেই লুকিয়ে রাখা ফাইল অথবা অ্যাপ কে পুনরায় ব্রাউজ করতে পারবেন।

আমাদের শেষকথা

প্রিয় পাঠক, আপনি যদি অ্যান্ড্রয়েড মোবাইলে অ্যাপ লুকানোর অ্যাপ খুঁজে থাকেন। তাহলে আজকের এই আর্টিকেল টি আপনার জন্য অনেক বেশি প্রয়োজনীয়।

কারণ এই আর্টিকেল এর মাধ্যমে আমি আপনাকে এমন সব লুকানোর অ্যাপ এর সাথে পরিচয় করিয়ে দেয়ার চেষ্টা করেছি। যার মাধ্যমে আপনি উক্ত কাজটি খুব সহজেই করতে পারবেন।

আর আপনি যদি এই ধরনের টেকনোলজি রিলেটেড অজানা বিষয় গুলো কে সহজ ভাষায় জেনে নিতে চান। তাহলে অবশ্যই আমাদের সাথে থাকবেন।

Leave a Comment

Your email address will not be published.

HandsUp! কপি করা যাবে না বস!

Scroll to Top
Share via
Copy link
Powered by Social Snap