Snack Video থেকে টাকা ইনকাম করার উপায় – Bangla it blog

আপনি কি জানেন, বর্তমান সময়ে snack video থেকে টাকা ইনকাম করা যায়? – হুমমম আপনি ঠিকি দেখছেন। আজকের দিনে এমন অনেক টাকা ইনকাম করার এপস আছে।

Snack Video থেকে টাকা ইনকাম করার উপায়
Snack Video থেকে টাকা ইনকাম করার উপায়

তবে তার মধ্যে সবচেয়ে জনপ্রিয় একটি টাকা আয় করার এপস হলো Snack Video. কেননা, আজকের দিনে এমন অনেক মানুষ আছেন।

যারা মূলত হাজার হাজার টাকা Snack video থেকে আয় করে আসছে।

আমি গত পোষ্টে টিকটক থেকে টাকা ইনকাম নিয়ে একটি আর্টিকেল পাবলিশ করেছিলাম। যেটি আপনারা অনেকেই দেখেছেন।

এবং সেই ধারাবাহিকতায় আজকে আরও একটি টাকা আয় করার এপস নিয়ে আলোচনা করবো। যেন আপনি আপনার মোবাইল ফোন দিয়েই এই এপস থেকে আয় করে নিতে পারেন।

তো টিকটক এর মতো আরও একটি জনপ্রিয় এপস হলো Snack Video. যেখানে আপনি একেবারে বিনামূল্যে একজন কন্টেন্ট ক্রিয়েটর হিসেবে কাজ করতে পারবেন।

শুধু তাই নয় বরং এই এপসে আরও অনেক ফিচার আছে। যেগুলোর মাধ্যমে আপনি এই এপস থেকে বেশ ভালো পরিমানে অনলাইন ইনকাম জেনারেট করে নিতে পারবেন।

এখন এই snack video থেকে টাকা ইনকাম করার জন্য যে যে বিষয় গুলো আছে। আজকে সেই বিষয় গুলো নিয়ে বিষদভাবে আলোচনা করবো।

আর আপনি যদি snack video থেকে টাকা আয় করতে চান। তাহলে আজকের পুরো আর্টিকেলটি মনোযোগ সহকারে পড়বেন ৷

তাহলে আজকের পর থেকে আপনিও অন্যদের মতো snack video থেকে টাকা আয় করতে পারবেন। 

Snack ভিডিও অ্যাপস কি?

স্ন্যাক ভিডিও থেকে টাকা ইনকাম করা নিয়ে আজকের আর্টিকেলে অবশ্যই বিস্তারিত আলোচনা করবো ৷

তবে তার আগে আপনাকে জেনে নিতে হবে যে, এই যে Snack Video নামক এপসটি রয়েছে। এটি আসলে কি, এবং এই এপসে কি কি কাজ করা হয়।

তো চলুন সবার আগে সে নিয়ে একটু ধারনা নেয়া যাক।

আপনার জন্য আরো লেখা … 

মূলত Snack Video হলো টিকটক এর মতো একটি সিমিলার এপস। যেখানে আপনি টিকটক এর মতো শর্ট ভিডিও আপলোড করতে পারবেন।

আমরা যেমন টিকটকে বিভিন্ন টপিকে Short Video আপলোড করি। ঠিক একইভাবে আপনি স্ন্যাক ভিডিওতে আপনার নিজের পছন্দ এবং চাহিদা মতো শর্ট ভিডিও আপলোড করতে পারবেন।

এবং সেই ভিডিও গুলো হাজার হাজার মানুষ এর নিকট পৌঁছাতে পারবেন। 

Snack Video App দিয়ে  কি করা যায়?

এই এপসে আপনি শর্ট ভিডিও আপলোড করার পাশাপাশি আরও অনেক ধরনের কাজ করতে পারবেন।

আমাদের মধ্যে এমন অনেক মানুষ আছেন, যারা মনে করেন যে এই এপসে শুধুমাএ #Short Video আপলোড করা যায়।

কিন্তুু আপনি জানলে অবাক হয়ে যাবেন কারন এখানে আপনি শর্ট ভিডিও আপলোড করার পাশাপাশি আপনি আরও অনেক ধরনের কাজ করতে পারবেন। যেমনঃ

১| লাইভ স্ট্রিমিং করতে পারবেন 

Live Streaming হলো এমন এক ধরনের উন্নত টেকনোলজি। যার মাধ্যমে আপনি আপনার মোবাইল দিয়ে কোনো দৃশ্যমান বস্তুকে ভিডিও করবেন।

এবং ভিডিও রেকর্ড করার সাথে সাথে উক্ত ভিডিও কে লক্ষ লক্ষ মানুষ কে দেখাতে পারবেন। মূলত একে বলা হয়, লাইভ স্ট্রিমিং। যার সুবিধাটি আপনি Snack Video তে দেখতে পারবেন ৷ 

২| বিভিন্ন কনটেস্ট করতে পারবেন 

Snack Video Apps এর আরও একটি জনপ্রিয় ফিচার হলো কনটেস্ট। মূলত এই ধরনের শর্ট ভিডিও প্লাটফর্ম গুলোতে বিভিন্ন টপিক এর উপর নির্ভর করে প্রতিযোগীতার আয়োজন করা হয়ে থাকে ৷

যেখানে আপনি একজন কন্টেন্ট ক্রিয়েটর হিসেবে যুক্ত হয়ে বিভিন্ন প্রতিযোগীতায় অংশগ্রহন করতে পারবেন৷ 

৩| শর্ট ভিডিও আপলোড করতে পারবেন 

এই জাতীয় প্লাটফর্ম গুলোর মুল কাজ হলো যে ফিচার আছে। সেটি হলো Short Video আপলোড করা।

যা আমরা এই ধরনের এপস গুলোতে দেখে থাকি। তো এখানে আপনি যদি ভিডিও তৈরি করতে ভালোবাসেন। তাহলে Snack Video আপনার জন্য উপযুক্ত একটি প্লাটফর্ম হবে।

যেখানে আপনি আপনার নিজের রুচিসম্মত ভিডিও তৈরি করার পর সেগুলো কে স্ন্যাক ভিডিওতে আপলোড করতে পারবেন ৷ 

Snack Video থেকে কি টাকা ইনকাম করা যায়?

আজকের আর্টিকেল রিলেটেড একটি গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্ন হলো যে, আজকের দিনে কি স্ন্যাক ভিডিও থেকে টাকা ইনকাম করা সম্ভব? –

হয়তবা আপনার মনেও এই প্রশ্নটি বারবার উঁকি দিয়ে থাকবে। তাই এবার সে নিয়ে হালকা করে আলোচনা করবো। যেন আপনার বুঝতে সুবিধা হয়।

দেখুন আজকের দিনে যে অনলাইন থেকে টাকা আয় করা সম্ভব। এ নিয়ে আমরা মোটামুটি সবাই জানি। কেননা, বর্তমানে এমন অনেক মানুষ আছেন।

যারা মূলত বেশ ভালো পরিমান টাকা অনলাইন থেকে আয় করে আসছে। আর অনলাইন থেকে আয় করার সেই টাকার পরিমানও মোটেই কম নয়।

তো জানার বিষয় হলো যে, বর্তমান সময়ে কি সত্যিই snack video থেকে টাকা ইনকাম করা সম্ভব? – উওরে বলবো, হুমমম! সম্ভব।

কেননা, স্ন্যাক ভিডিও নামক এপসে এমন অনেক ধরনের ফিচার আছে। যদি আপনি সঠিকভাবে সেই ফিচার গুলোকে ব্যবহার করতে পারেন ৷

এবং সেই ফিচার অনুযায়ী কাজ করতে পারেন। তাহলে কিন্তুু আপনি বিপুল পরিমান টাকা snack video থেকে ইনকাম করে নিতে পারবেন। 

কত টাকা Snack Video থেকে ইনকাম করা যাবে? 

আপনি এই টাকা আয় করার এপস থেকে মোট কত টাকা আয় করতে পারবেন ৷ তা কিন্তুু কোনোভাবে ষ্পষ্ট করে বলা সম্ভব নয়।

কেননা, আপনার আয় করা টাকার পরিমান নির্ভর করবে বেশ কিছু কাজের উপর৷ এখন আপনি যদি সেই কাজ গুলো সঠিক ভাবে করতে পারেন।

তাহলে আপনার snack video থেকে টাকা ইনকাম এর পরিমান বাড়বে।

অপরদিকে আপনি যদি সেই কাজ গুলো সঠিকভাবে করতে না পারেন। তাহলে কিন্তুু আপনি Snack Video থেকে আশানুরূপ ইনকাম করতে পারবেন না।

তবে জানার বিষয় হলো যে, এমন কি কি কাজ আছে। যেগুলো করলে আপনার Snack Video থেকে টাকা ইনকাম করার পরিমান বেড়ে যাবে? – চলুন এবার সে নিয়ে স্বল্প আকারে ধারনা নেয়া যাক।

তো এমন অনেক উপায় আছে, যেগুলো আপনি সঠিকভাবে অনুসরন করতে পারলে। আপনি আপনার snack video থেকে টাকা আয় এর পরিমান বাড়িয়ে নিতে পারবেন। যেমনঃ

০১| আপনার ফলোয়ার বৃদ্ধি করতে হবে 

আপনি মূলত Snack Video থেকে কি পরিমান টাকা আয় করবেন। তার প্রায় বেশিরভাগ অংশ নির্ভর করবে আসলে আপনার Snck Account এ কি পরিমান ফলোয়ার রয়েছে।

কেননা, আপনার একাউন্টে যদি যথেষ্ট পরিমান ফলোয়ার না থাকে। তাহলে কিন্তুু আপনি তেমন কিছুই করতে পারবেন না।

অপরদিকে আপনি যদি আপনার স্ন্যাক একাউন্টে হিউজ পরিমান ফলোয়ার নিয়ে আসতে পারেন। তাহলে কিন্তুু আপনি বিভিন্ন উপায়ে টাকা আয় করে নিতে পারবেন।

তাই সবার আগে আপনাকে ফলোয়ার বৃদ্ধি করার প্রতি যথেষ্ট ফোকাস রাখতে হবে।

তো snack video থেকে টাকা আয় করার আগে আপনাকে জেনে নিতে হবে যে, কিভাবে আপনি আপনার স্ন্যাক একাউন্ট এর ফলোয়ার বৃদ্ধি করবেন। 

How To Increase Your Snack Video Follower? 

যদি আপনি স্ন্যাক ভিডিও থেকে বেশি পরিমানে টাকা আয় করতে চান। তাহলে আপনার একাউন্ট এর ফলোয়ার বৃদ্ধি করার কোনো বিকল্প নেই।

আর আপনি যদি ফলোয়ার বাড়িয়ে নিতে চান। তাহলে আপনাকে বেশ কিছু বিষয় এর দিকে যথেষ্ট নজর রাখতে হবে। যেমনঃ 

  • আপনাকে এমন কিছু ভিডিও তৈরি করতে হবে। যেগুলো দর্শকদের কাছে যেন ভালো লাগে। কেননা, Snack Apps এ থাকা দর্শকরা যদি আপনার ভিডিও দেখতে পছন্দ না করে। তাহলে কিন্তুু তারা আপনাকে ফলো করবে না। 
  • ফলোয়ার বৃদ্ধি করার সবচেয়ে জনপ্রিয় উপায় হলো ট্রেন্ডিং টপিক নিয়ে ভিডিও তৈরি করা। চলমান সময়ে যে বিষয় গুলো মানুষ এর মুখেমুখে থাকে।
  • আপনি যদি সেই টপিক গুলো নিয়ে ভিডিও তৈরি করেন। তাহলে কিন্তুু আপনি সাধারনভাবে আপনার ভিডিওতে অনেক বেশি ভিউ নিয়ে আসতে পারবেন। 
  • মানুষ হিসেবে আমরা সবাই হাসতে ভালোবাসি ৷ এখন আপনি যদি আপনার কন্টেন্ট এর মাধ্যমে মানুষ কে হাসাতে পারেন। তাহলে কিন্তুু আপনার ভিডিওতে অনেক বেশি ভিউ আসবে। তাই চেস্টা করবেন ফানি কন্টেন্ট তৈরি করার। 
  • আপনার ভিডিও এর মাধ্যমে দর্শকদের মধ্যে একটা রিলেশন তৈরি করার চেস্টা করবেন ৷ যাকে আমরা কমিউনিকেশন বলে থাকি। এতে করে আপনার ভিডিওতে অডিয়্যান্স এনগেজিং অনেক ভালো হবে।

তো আপনি যদি উপরোক্ত নিয়ম গুলো ভালোভাবে ফলো করেন। তাহলে কিন্তুু খুব সহজভাবে এবং অনেক দ্রুততার সাথে আপনার ফলোয়ার বেড়ে যাবে।

আপনি আরো দেখতে পারেন…

এবং আপনি এই ফলোয়ার গুলোর মাধ্যমে আপনার snack video থেকে টাকা ইনকাম এর পরিমানকেও বাড়িয়ে নিতে পারবেন। 

Snack Video থেকে টাকা ইনকাম করার উপায় কি?

যাক এবার আপনি আর্টিকেল এর মূল টপিকে ফিরে এসেছেন। আপনি এতোক্ষন ধরে Snack Video রিলেটেড অনেক অজানা তথ্য সম্পর্কে জানতে পেরেছেন।

আশা করি উপরোক্ত আলোচনা গুলো বেশ ভালোভাবে বুঝতে পেরেছেন। তো এবার আপনি জানতে পারবেন যে, কিভাবে আপনি snack video থেকে টাকা ইনকাম করবেন।

তো বর্তমান সময়ে এমন অনেক উপায় আছে। যে উপায় গুলোর মাধ্যমে আপনি খুব সহজেই প্রচুর পরিমান টাকা Snack Video থেকে ইনকাম করে নিতে পারবেন। যেমনঃ

০১| লাইভ স্ট্রিমিং করে Snack Video  থেকে ইনকাম

এই জাতীয় এপস গুলো থেকে বেশি পরিমানে আয় করার সবচেয়ে জনপ্রিয় একটি মাধ্যম হলো লাইভ স্ট্রিমিং।

যেখান থেকে আজকের দিনে এমন অনেক মানুষ আছেন। যারা বেশ ভালো পরিমান টাকা Snack Video থেকে আয় করে আসছে।

কেননা, ঝামেলা বিহীন একটি প্রক্রিয়া থেকে যদি আয় করা যায়। তাহলে মানুষ কেন এই সুযোগটি গ্রহন করবে না?

এখন আপনি যদি স্ন্যাক ভিডিও থেকে টাকা ইনকাম করতে চান। তাহলে সবার আগে আপনাকে এই লাইভ স্ট্রিমিং করার উপায়টি অনুসরন করা উচিত।

আপনাকে শুধু ক্যামেরার সামনে এসে নতুন কিছু করতে হবে। যেগুলো দর্শকরা দেখতে ইচ্ছুক। এরপর যখন আপনার লাইভ স্ট্রিমিংটি বিপুল সংখ্যক দর্শক দেখবে।

তখন আপনার সেই স্ট্রিমিং থেকে বেশ ভালো পরিমানে আয় জেনারেট হবে।

💡PRO TIPS: মেয়েদের জন্য লাইভ স্ট্রিমিং করে দর্শক নিয়ে আসাটা অনেক সহজ একটি কাজ। কেননা, যখন লাইভে কোনো মেয়ে আসবে। তখন ছেলেরা সেই লাইভ গুলো অনেক বেশি পরিমানে দেখে থাকবে।

⚠️ALART: অতিরিক্ত ভিউ এর আশায় কখনই আপনি লাইভে এডাল্ট (১৮+) কন্টেন্ট নিয়ে কাজ করবেন না। যা আইনগত অপরাধ এবং এইসব কন্টেন্ট নিয়ে খুব বেশিদুর এগিয়ে যেতে পারবেন না। 

০২| কনটেস্ট করে Snack Video থেকে টাকা ইনকাম

যারা মূলত Tiktok, Likee কিংবা Snack Video এর মতো শর্ট প্লাটফর্ম গুলোতে নিয়মিত একটিভ থাকেন। তাদের হয়তবা জানা থাকবে যে, এই এপস গুলোতে বিভিন্ন সময় বিভিন্ন ধরনের কনটেন্ট হয়ে থাকে।

তো আপনিও একজন সাধারন ইউজার হিসেবে এই ধরনের কনটেস্টে অংশগ্রহণ করতে পারবেন।

এখন এই কনটেস্ট গুলোতে শুধু অংশগ্রহণ করার মধ্যেই সীমাবদ্ধ নয়। বরং এখানে আপনি যদি অংশগ্রহন করেন। তাহলে এর বিনিময়ে আপনি বেশ ভালো পরিমান টাকা Snack Video থেকে আয় করে নিতে পারবেন।

তবে হ্যাঁ আপনি যদি এখান থেকে টাকা আয় করতে চান। তাহলে অবশ্যই আপনাকে আয়োজিত এই কনটেস্ট গুলোতে জয়ী হতে হবে। 

০৩| গিফটের মাধ্যমে Snack Video থেকে টাকা ইনকাম

সচারাচর এই Gift নামক ফিচারটি থেকে আপনি কি পরিমান টাকা আয় করতে পারবেন ৷ তা সম্পূর্ণ আপনার দক্ষতা বা টেকনিক এর উপর নির্ভর করবে।

এখানে আপনি যতো বেশি দক্ষতার প্রয়োগ করতে পারবেন। Snack Video তে আপনার গিফট পাওয়ার সম্ভাবনা ঠিক ততোই বেশি থাকবে।

হয়তবা এখন আপনার মনে প্রশ্ন জাগতে পারে যে, এই Gift আবার কি জিনিস? – তো চলুন এবার সে নিয়ে একটু ধারনা নেয়া যাক।

মনে করুন আপনি কোনো Live Streaming করছেন। এখন আপনার সেই স্ট্রিমিং কিন্তুু অনেক মানুষ দেখে থাকবে। এখন তাদের মধ্যে কারো যদি আপনার স্ট্রিমিং ভালো লাগে।

তখন তারা আপনাকে Diamond বা Coin গিফট করবে। মূলত এটি হলো মূল কাজের প্রক্রিয়া।

এখন আর একটু চিন্তা করে দেখুন। মানুষ কিন্তুু আপনাকে তখনি গিফট করবে। যখন আপনার তৈরি করা ভিডিও কিংবা লাইভ স্ট্রিমিং গুলো তাদের কাছে ভালো লাগবে।

তাই আপনি যদি বেশি বেশি গিফট পেতে চান। তাহলে আপনাকে দর্শকদের মন জয় করতে হবে।

এবং আপনার তৈরি করা ভিডিও তে কখন কি বললে অডিয়্যান্সদের কাছে ভালো লাগবে। তা আপনাকে নিজে থেকে আইডিয়া করতে হবে। 

০৪| স্পনসারশিপ এর মাধ্যমে Snack Video থেকে টাকা ইনকাম

আজকের দিনে অনলাইন প্লাটফর্ম গুলো থেকে টাকা আয় করার সবচেয়ে সহজ পদ্ধতি হলো Sponsorship.

যেখানে আপনিও অন্যদের মতো বিপুল পরিমান টাকা স্ন্যাক ভিডিও থেকে ইনকাম করে নিতে পারবেন।

এখন জানার বিষয় হলো যে, সবচেয়ে বেশি পরিমানে টাকা আয় করার জন্য এই স্পন্সরশীপ পদ্ধতি আসলে কাকে বলে? – তে চলুন এবার সে নিয়ে একটু ধারনা নেয়া যাক।

দেখুন, আমরা সবাই কমবেশি টিভি দেখে থাকি। তো আমরা যখন টিভিতে কোনো ধরনের প্রোগ্রাম দেখি। তখন কিন্তুু কোনো প্রোগ্রাম চলাকালীন বিভিন্ন ধরনের বিজ্ঞাপন দেখানো হয়।

যেখানে বিভিন্ন কোম্পানি তাদের প্রোডাক্ট লাখ লাখ মানুষের নিকট প্রচার করে।

মূলত টিভি চ্যানেল গুলোতে এই ধরনের বিজ্ঞাপন প্রচার করার কারনে কিন্তুু এই কোম্পানি গুলো ঐ চ্যানেল গুলোকে অনেক বেশি টাকা দিয়ে থাকে।

আর তাদের পন্যের প্রচার করার এই পদ্ধতিকে বলা হয় স্পন্সরশীপ।

এখন আপনি যদি Snack Video থেকে স্পন্সরশীপ এর মাধ্যমে টাকা আয় করতে চান। তাহলে কিন্তুু আপনি এই কাজটি খুব সহজেই করতে পারবেন ৷

সেক্ষেএে আপনি আপনার স্ন্যাক ভিডিও এপস এর একাউন্টের মাধ্যমে স্পন্সরশীপ গ্রহন করতে হবে।

কিন্তুু আমরা তো সবাই জানি যে, টাকা আয় করার কোনো পথ সহজ নয় ৷ আর সেই কথাটির প্রভাব আপনি তখনি টের পাবেন ৷

যখন আপনি আপনার Snack Video Account এর মাধ্যমে কোনো স্পন্সরশীপ নেয়ার চেস্টা করবেন ৷ কেননা, আপনাকে তখনি কোনো কোম্পানি এসে স্পন্সর করার জন্য অফার করবে।

যখন আপনার একাউন্টে হিউজ পরিমানে ফলোয়ার থাকবে। আর তখনি আপনি এই পদ্ধতি অনুসরন করে Snack Video থেকে টাকা ইনকাম করতে পারবেন। 

০৫| রেফার করে Snack Video থেকে টাকা ইনকাম 

আপনি যদি এই ধরনের শর্ট ভিডিও প্লাটফর্ম থেকে সবচেয়ে বেশি পরিমানে টাকা আয় করতে চান। তাহলে আপনার জন্য সহজ একটি কাজ হলো রেফার করা।

কেননা, আপনি Snack Video থেকে আয় করার যতগুলো উপায় আছে। তার মধ্যে সবচেয়ে সহজ উপায় হলো রেফার করা ৷

এবং অন্যান্য উপায় গুলোর তুলনায় আপনি এই রেফার করে বেশ ভালো পরিমান টাকা অনলাইন থেকে আয় করে নিতে পারবেন।

এখন হয়তবা আপনার মনে প্রশ্ন জাগতে পারে যে, এই রেফার আবার কি জিনিস? -তাহলে শুনুন… রেফার হলো এমন একটি পদ্ধতি।

যেখানে আপনি একজন Sanck Apps User হিসেবে অন্যান্য মানুষকেও এই এপসটি ব্যবহার করার জন্য উৎসাহিত করবেন। এখন তারা যদি আপনার দেওয়া লিংক থেকে Snack Video Apps ডাউনলোড করে ইনস্টল করে।

তাহলে আপনি এই কাজের বিনিময়ে বেশ ভালো পরিমান টাকা পাবেন।

💡NOTE: গত কয়েকদিন ধরে এই এপসে রেফার করার বিনিময়ে টাকা প্রদান করা সাময়িক সময় এর জন্য বন্ধ আছে। তবে যতো দ্রুত সম্ভব রেফার করে আয় করার পদ্ধতিটি খুব দ্রুত পুনরায় চালু হবে। 

Snack Video থেকে ইনকাম করার জন্য কি করতে হবে?

আমি উপরেই একটা কথা বলেছি যে, টাকা আয় করার কোনো পথ সহজ নয়। আপনি যে কাজেই টাকা আয় করার চেস্টা করুন না কেন।

আপনাকে সেই কাজের জন্য যথেষ্ট সময় এবং শ্রম ব্যয় করতে হবে। ঠিক তেমনিভাবে আপনি যদি Snack Video থেকে টাকা আয় করতে চান ৷

আপনি আরো দেখুন…

তাহলেও কিন্তুু আপনাকে বেশ কিছু কাজ করতে হবে।

তো এবার তাহলে জেনে নেয়া যাক যে, Snack Video থেকে টাকা ইনকাম করার জন্য কি কি কাজ করতে হবে। 

০১| একটি Snack Video Account তৈরি করতে হবে 

আপনি যদি এই এপস থেকে টাকা ইনকাম করতে চান। তাহলে সবার আগে আপনাকে একটি Snack একাউন্ট তৈরি করতে হবে।

কেননা, যদি আপনার এমন কোনো একাউন্ট না থাকে। তাহলে আপনি উক্ত এপসে কোনো ধরনের কাজ করতে পারবেন না। তো সবার আগে আপনাকে জেনে নিতে হবে যে, কিভাবে আপনি একটি একাউন্ট তৈরি করবেন।

চলুন তাহলে এবার সে বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা যাক। 

Snack Video একাউন্ট খোলার নিয়ম

যদি আপনি সফলভাবে একটি স্ন্যাক ভিডিও একাউন্ট তৈরি করতে চান। তাহলে আপনাকে বেশ কিছু ধাপ অনুসরন করতে হবে। যেমনঃ

  • সবার আগে আপনাকে Google Play Store এ যেতে হবে। এবং সেখানে আপনাকে Snack Video Apps টি ডাউনলোড করার পরে ইনস্টল করতে হবে। 
  • এরপর ইনস্টল করা সেই এপসটি কে অপেন করতে হবে। 
  • যখন আপনি এই এপসটি কে অপেন করবেন ৷ তখন আপনি স্ক্রিনের উপরে সাদামাটা একটা ইন্টারফেস দেখতে পারবেন। এবং সবার নিচের ডানপাশে একটি Man icon দেখতে পারবেন। 
  • উক্ত আইকনে ক্লিক করার পর আপনি একটি ফর্ম দেখতে পারবেন। যেখানে আপনার নাম, বয়স,ঠিকানা ইত্যাদি দেয়ার পর ফরমটি কে পূরন করতে হবে। 
  • তো যখন আপনি এই ফর্মটিকে পূরন করবেন। তখন আপনার Snack Video Account তৈরি করার কাজটি সম্পন্ন হবে।

তো আপনি যদি উপরোক্ত কাজ গুলো সঠিকভাবে করতে পারেন। তাহলে আপনি সফলভাবে একটি স্ন্যাক ভিডিও এপস এর একাউন্ট তৈরি করতে পারবেন। এবং তারপর আপনাকে পরবর্তী কাজ গুলো করতে হবে।

০২| একাউন্ট এর ফলোয়ার বৃদ্ধি করতে হবে 

তো যদি আপনি উপরোক্ত আলোচনা গুলি মনোযোগ দিয়ে পড়ে থাকেন ৷

তাহলে এতক্ষনে আপনি বুঝে গেছেন যে, একাউন্টে ফলোয়ার না করতে পারলে আপনি কোনো ভাবেই Snack Video থেকে টাকা ইনকাম করতে পারবেন না।

তাই সবার আগে টাকা আয় করার দিকে ফোকাস না রেখে কিভাবে আপনি আপনার একাউন্টে ফলোয়ার বৃদ্ধি করবেন ৷ সে বিষয়ে যথেষ্ট ফোকাস রাখবেন ৷

এখন আপনার সুবিধার জন্য আমি আপনাকে বেশ কিছু টিপস প্রদান করবো। যেগুলোর মাধ্যমে আপনি খুব সহজেই আপনার স্ন্যাক একাউন্টের ফলোয়ার বাড়িয়ে নিতে পারবেন। যেমনঃ

  • আপনাকে এমন কোনো কন্টেন্ট নিয়ে কাজ করতে হবে। যে কন্টেন্ট গুলো দেখার পর মানুষ কিছু না কিছু শিখতে পারে। 
  • আপনার কন্টেন্ট এর মাধ্যমে দর্শকদের ভালো কোনো মেসেজ দেয়ার চেস্টা করবেন ৷ 
  • সবচেয়ে ভালো হয় আপনি যদি Funny Content নিয়ে কাজ করেন। কারন বর্তমান সময়ে ফানি কন্টেন্ট গুলোতে হিউজ পরিমানে ভিউ হয়ে থাকে। 
  • ভিউ পাবার আশায় ভুলেও কোনো এডাল্ট কন্টেন্ট নিয়ে কাজ করবেন না। এতে করে আপনি নিজেই আপনার ক্ষতি করবেন।

এবার আপনি যদি উপরোক্ত কাজগুলো সঠিকভাবে করতে পারেন। তাহলে আপনিও খুব সহজেই অন্যদের মতো হাজার হাজার টাকা Snack Video থেকে ইনকাম করে নিতে পারবেন। 

Snack Video থেকে টাকা ইনকাম নিয়ে আমাদের শেষকথা 

আজকের আর্টিকেলে আমি Snack Video থেকে টাকা ইনকাম সম্পর্কিত যে সমস্ত বিষয় আছে। সেগুলোর প্রত্যেকটি বিষয় নিয়ে স্টেপ বাই স্টেপ আলোচনা করেছি।

এরপরও যদি আপনার Snack Video থেকে টাকা ইনকাম সম্পর্কিত কোনো বিষয় অজানা থাকে। তাহলে নিচে ছোট্ট করে একটা কমেন্ট করবেন। আমি যথাসম্ভব আপনার সমস্যার সমাধান করার চেস্টা করবো ৷ 

আর নতুন নতুন অনলাইন থেকে ইনকাম করার উপায় জানতে আমাদের ব্লগ সাইট নিয়মিত ভিজিট করুন ।

বাংলা আইটি ব্লগের সাথে থাকার জন্য ধন্যবাদ 

1 thought on “Snack Video থেকে টাকা ইনকাম করার উপায় – Bangla it blog”

  1. ভাবনা সরকার

    আসলেই কি এই সব এপ থেকে টাকা ইনকাম করা সম্ভব?

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top
Share via
Copy link
Powered by Social Snap