সেরা ১০ টি অনলাইন ডেটিং অ্যাপস – (Best Dating Apps)

অনলাইন ডেটিং অ্যাপস : Best Free Dating Apps List in Bengali. বর্তমান সময়ে আমরা ইন্টারনেটের মধ্যে বিভিন্ন ধরনের সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম দেখে থাকি।

সেরা ১০ টি অনলাইন ডেটিং অ্যাপস – (Best Dating Apps)
সেরা ১০ টি অনলাইন ডেটিং অ্যাপস

তবে মানুষ এখন সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম গুলো ব্যবহার করার পাশাপাশি বিভিন্ন ধরনের অনলাইন ডেটিং অ্যাপস ব্যবহার করে থাকে।

আর সময় যতো অতিবাহিত হচ্ছে, ঠিক ততটাই এই ধরনের অনলাইন ডেটিং অ্যাপস এর চাহিদা ক্রমাগত ভাবে বেড়ে উঠছে।

কেননা একজন মানুষ যখন সিঙ্গেল থাকে তখন তার মনের ভেতরে প্রিয় মানুষ কে খুঁজে নেওয়ার একটা প্রবণতা লক্ষ্য করা যায়।

কারন সবাই চায় তার একটি প্রিয় মানুষ থাকুক। সেই মানুষ টি তার খোঁজ খবর রাখুক। কিন্তু বাস্তব জীবনে এমন মনের মানুষ খুঁজে পাওয়াটা কঠিন হলেও।

আজকের দিনে অনলাইন ডেটিং অ্যাপস গুলো এই অভাব বোধ পূরণ করে দিয়েছে। যেখানে আপনি খুব সহজেই আপনার মনের মানুষ কে খুঁজে নিতে পারবেন।

তো এই ডেটিং অ্যাপস এর ব্যবহার ক্রমাগত ভাবে বাড়লেও। আমাদের মধ্যে এমন অনেক মানুষ আছেন যারা মূলত এখন পর্যন্ত জানে না যে Dating Apps কি

এবং অনলাইন ডেটিং অ্যাপস কিভাবে ব্যবহার করতে হয় বা কিভাবে ডেটিং করতে হয় জানে না। তো যারা আসলে এই ধরনের Online dating apps ব্যবহার করতে চান।

তাদের জন্য আজকের এই আর্টিকেল টি অনেক বেশি প্রয়োজনীয়।

কারণ আজকের এই আর্টিকেলের মাধ্যমে আমি আপনাকে  অনলাইন সেরা ডেটিং অ্যাপ এর যাবতীয় বিষয় গুলো সম্পর্কে বিস্তারিত বলার চেষ্টা করব।

আপনার জন্য আরোও লেখা…

তো আপনি যদি এই ধরনের Dating Apps, অনলাইন ডেটিং সেবা এবং  ফ্রি ডেটিং অ্যাপস সম্পর্কে একবারে বিস্তারিত তথ্য জানতে চান।

তাহলে অবশ্যই চেষ্টা করবেন আজকে পুরো আর্টিকেল টি মনোযোগ দিয়ে পড়ার। তাহলে আর দেরি না করে চলুন সরাসরি মূল আলোচনা তে ফিরে যাওয়া যাক।

অনলাইন ডেটিং অ্যাপস কি? What is online dating App

তো আমরা যেমন আমাদের যোগাযোগ অক্ষুন্ন রাখার জন্য বিভিন্ন ধরনের সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম ব্যবহার করে থাকি।

ঠিক তেমনি ভাবে এই অনলাইন ডেটিং অ্যাপস গুলো মূলত Match Maker হিসেবে কাজ করে থাকে।

যেমন ধরুন, আমরা ফেসবুকের মধ্যে বিভিন্ন ধরনের নতুন নতুন বন্ধু তৈরি করতে পারি। এবং সেই বন্ধুদের সাথে কথা বলতে পারি।

এবং এইভাবে একজন নতুন ব্যক্তির সাথে আমরা পরিচিত হয়ে উঠি। ঠিক একই ভাবে এই ধরনের ডেটিং অ্যাপ গুলো কাজ করে থাকে।

তবে এই ডেটিং অ্যাপস এর মূল উদ্দেশ্য হলো কোন একজন নতুন ব্যক্তি তার অপরিচিত ব্যক্তিদের সাথে সম্পর্ক স্থাপন করা।

যেমন, আপনি একজন ছেলে হয়ে যখন এই ধরনের ডেটিং অ্যাপস গুলো ব্যবহার করবেন।

তখন আপনি বিভিন্ন ধরনের মেয়েদের সাথে যোগাযোগ রাখতে পারবেন। এবং তাদের সাথে সম্পর্কের সৃষ্টি করতে পারবেন।

আর আপনি যদি একান্তভাবে জানতে চান যে, ডেটিং অ্যাপস কি। তাহলে আমি আপনাকে বলব যে,  ডেটিংস অ্যাপস হলো নতুন বন্ধু তৈরি করার একটি বিশেষ প্ল্যাটফর্ম। 

যেখানে একজন ছেলে অথবা একজন মেয়ে খুব সহজেই কোন অপরিচিত মানুষের সাথে বন্ধুত্ব তৈরি করতে পারবে।

এবং তারা যদি তাদের বন্ধুত্ব কে বজায় রাখতে পারে। তাহলে একটা সময় তারা নিজেদের মধ্যে বিয়ে পর্যন্ত সম্পর্ক গড়িয়ে নিতে পারবে।

মূলত এই ধরনের বিশেষ একটি প্লাটফর্ম হল ডেটিং অ্যাপস। আর সে কারণেই মূলত বর্তমান সময়ে এই ধরনের ডেটিংস অ্যাপস গুলোর জনপ্রিয়তা ক্রমাগত ভাবে বেড়ে উঠছে।

অনেকের মনে প্রশ্ন থাকে যে ডেটিং অ্যাপ বাংলাদেশ থেকে ব্যবহার করা যায় কিনা। তাদের কে বলব হ্যা ব্যবহার করা যায়। তবে কিছু কিছু এপ ব্যবহার করা যায়না।

এখন পর্যন্ত বাংলাদেশের ফ্রি ডেটিং সাইট বা বাংলা ডেটিং সাইট থাকলেউ তেমন একটিভ ইউজার নাই।

আর আপনিও যদি আপনার মনের মত মানুষ খুঁজে নিতে চান। তাহলে এই ধরনের ডেটিং অ্যাপস গুলো ব্যবহার করতে পারবেন।

অনলাইন ডেটিং অ্যাপ কি ফ্রিতে ব্যবহার করা যায়?

উপরের আলোচনা থেকে আপনি জানতে পারলেন, যে অনলাইন ডেটিং অ্যাপস কি।

তো এ বিষয়টি জানার পরে এখন হয়তোবা আপনার মনে একটি প্রশ্ন জেগে থাকবে। আর সেই প্রশ্নটি হল যে, এই ধরনের অনলাইন ডেটিং অ্যাপস কি ফ্রিতে ব্যবহার করা যায় কিনা।

তো আপনার মনে যদি এই ধরনের প্রশ্ন জেগে থাকে। তাহলে আমি আপনাকে মোট দুই ভাবে উত্তর প্রদান করব।

আর সে গুলো হলো আপনি চাইলে একবারে বিনামূল্যে অনলাইন ডেটিং অ্যাপস ব্যবহার করতে পারবেন।

আবার আপনি যদি চান যে, টাকা ব্যয় করার মাধ্যমে অনলাইন ডেটিং অ্যাপস ব্যবহার করবেন।

সেটাও আপনি পারবেন। তো এখন হয়তোবা আপনি ভাবছেন যে, যদি ফ্রিতে ডেটিং অ্যাপস ব্যবহার করা যায়। তাহলে টাকা দিয়ে কেন ব্যবহার করব।

তো আপনি যদি এই প্রশ্নের উত্তর টি জানতে চান। তাহলে আপনাকে একটু বিস্তারিত আলোচনায় যেতে হবে।

এখন আপনি একটা বিষয় চিন্তা করে দেখুন। এই ধরনের অনলাইন ডেটিং অ্যাপস গুলো যারা তৈরি করেছে। তারা অবশ্যই টাকা ইনকাম করার জন্য এমন প্লাটফর্ম তৈরি করেছে।

তো যারা এই ধরনের প্লাটফর্ম গুলো তৈরি করেছে। তারা এই সব ডেটিং অ্যাপস এর মধ্যে বেশ কিছু ফিচার রাখবে। যে ফিচার গুলো ব্যবহার করার জন্য অবশ্যই আপনাকে অর্থ ব্যয় করতে হবে।

আর আপনি যখন অর্থ ব্যয় করার মাধ্যমে এই ধরনের ডেটিং অ্যাপস গুলো ব্যবহার করবেন। তখন আপনি বাড়তি কিছু সুবিধা ভোগ করতে পারবেন।

অপরদিকে আপনি যদি কোন প্রকার অর্থ ব্যয় না করে একবারে বিনামূল্যে ডেটিং অ্যাপস গুলো ব্যবহার করতে চান।

সে ক্ষেত্রে আপনি অনেক সুবিধা থেকে বঞ্চিত হবেন। তো সে কারণে আমি উপরে আপনাকে বলেছি।

যে, আপনি চাইলে একবারে বিনামূল্যে এই ধরনের অনলাইন ডেটিং অ্যাপস গুলো ব্যবহার করতে পারবেন।

অথবা আপনি চাইলে অর্থ বিনিময় করার মাধ্যমেও এই ধরনের অনলাইন ডেটিং অ্যাপস গুলো ব্যবহার করতে পারবেন।

অনলাইন ডেটিং অ্যাপ এর সাবস্ক্রিপশন কিনতে হয় কি?

বর্তমান সময়ে আপনি বিভিন্ন ধরনের অনলাইন ডেটিং অ্যাপস দেখতে পারবেন। তবে সেইসব ডেটিং অ্যাপস এর মধ্যে এমন কিছু অ্যাপস রয়েছে।

যারা মূলত বর্তমান সময়ে প্রচুর পরিমাণে জনপ্রিয়তা অর্জন করতে পেরেছে। আর আপনি যদি এই ধরনের Dating apps গুলো ব্যবহার করতে চান।

তাহলে অবশ্যই আপনাকে সাবস্ক্রিপশন কিনতে হবে। আর যদি আপনি সেই সব অ্যাপস এর মধ্যে সাবস্ক্রিপশন কিনে নেন।

সে ক্ষেত্রে আপনি অনেক বাড়তি সুবিধা ভোগ করতে পারবেন। তবে সব ডেটিং অ্যাপস এর ক্ষেত্রে সাবস্ক্রিপশন প্রয়োজন হয় বিষয় টি এমন নয়।

বরং আপনি এমন অনেক ধরনের অনলাইন ডেটিং অ্যাপস দেখতে পারবেন। যে গুলো তে সাবস্ক্রিপশন করার প্রয়োজন হয় না।

তবে যেহেতু তারা এই ধরনের অ্যাপ তৈরি করে ইনকাম এর আশায়। সেহেতু যখন তাদের এই ডেটিং অ্যাপস গুলো জনপ্রিয়তা পায়।

তখন তারাও এই ধরনের পেইড সাবস্ক্রিপশন পদ্ধতি চালু করে। কিন্তু যখন তারা নতুন অ্যাপস হিসেবে মার্কেটে এই ধরনের ডেটিং অ্যাপস গুলো কে পাবলিশ করে।

তখন কোন ধরনের ডেটিং অ্যাপস সাবস্ক্রিপশন করার প্রয়োজন হয় না। তবে আপনি যদি এই ডেটিং অ্যাপস এর পূর্ণাঙ্গ সুবিধা নিতে চান।

তাহলে অবশ্যই অর্থ ব্যয় করে পেইড সাবস্ক্রিপশন নেওয়ার চিন্তা ভাবনা করবেন। এতে করে আপনি বিভিন্ন ধরনের সুযোগ সুবিধা ভোগ করতে পারবেন।

যা থেকে আপনার নতুন অভিজ্ঞতা হবে।

সেরা ৭টি  অনলাইন ডেটিং অ্যাপস গুলোর তালিকা- (Best Dating Apps)

এতক্ষণের আলোচনা থেকে আপনি জানতে পেরেছেন যে, অনলাইন ডেটিং অ্যাপস কি।

এবং বর্তমান সময়ে এই ধরনের অনলাইন ডেটিং অ্যাপস গুলো ব্যবহার করার জন্য কোন ধরনের সাবস্ক্রিপশন প্রয়োজন হয় কিনা।

তো আপনি যদি উপরের এই আলোচিত আলোচনা গুলো মনোযোগ দিয়ে পড়ে থাকেন। তাহলে আমার দীর্ঘ বিশ্বাস যে, এই বিষয় গুলো সম্পর্কে আপনি একবারে পরিষ্কার ধারণা পেয়ে গেছেন।

এখন এই বিষয় গুলো জানার পাশাপাশি আপনাকে গুরুত্বপূর্ণ যেসব তথ্য সম্পর্কে জানতে হবে।

সেটি হলো যে আজকের দিনে জনপ্রিয়তার শীর্ষে কোন কোন অনলাইন ডেটিং অ্যাপস গুলো রয়েছে।

আর আপনি যাতে এই বিষয় টি সম্পর্কে একবারে বিস্তারিত জানতে পারেন।

সে জন্য এবার আমি সেরা কয়েক টি অনলাইন ডেটিং অ্যাপস এর তালিকা প্রদান করব।

আপনি চাইলে নিচের যে কোন এক বা একাধিক অনলাইন ডেটিং অ্যাপস গুলো ব্যবহার করে নিজের মনের মানুষ কে খুঁজে নিতে পারবেন।

বাম্বল (Bumble)

যদি আপনি বর্তমান সময়ের সবচেয়ে জনপ্রিয় অনলাইন ডেটিং অ্যাপস এর নাম জানতে চান। তাহলে আমি সবার আগে যে নাম টি বলবো সেটি হল, বাম্বল (Bumble).

মূলত এই অ্যাপস টি ভারতের মধ্যে ব্যাপক ভাবে জনপ্রিয়তা অর্জন করতে পেরেছে। আর যেহেতু ভারতে এই অ্যাপসের জনপ্রিয়তা রয়েছে।

সেহেতু আমাদের বাংলাদেশের মধ্যেও ক্রমাগত ভাবে এই অ্যাপস জনপ্রিয়তা পেতে শুরু করেছে। কেননা আপনি যদি নতুন কোন বন্ধু খোঁজার জন্য এই অ্যাপস টি ব্যবহার করেন।

তাহলে আপনি খুব সহজেই আপনার পছন্দের মত বন্ধু কে খুঁজে নিতে পারবেন।

তবে বলাবাহুল্য যে এই অ্যাপ টি তে মহিলারা অধিক পরিমাণে সুবিধা ভোগ করতে পারবে।

কারণ যখন আপনি এই অনলাইন ডেটিং অ্যাপস টি ব্যবহার করবেন। তখন লক্ষ্য করতে পারবেন যে, মেয়েরা প্রথমত তাদের পছন্দের মানুষ কে খুঁজে নেয়।

এবং মেয়েরাই সর্বপ্রথম কথোপকথন চালু করে। অর্থাৎ আপনি যদি একজন পুরুষ হয়ে থাকেন। তাহলে আপনি কোন মেয়ের সাথে প্রথমে কথা বলতে পারবেন না।

বরং সেই মেয়ে টি যদি ইচ্ছে করে যে আপনার সাথে কথা বলবে। তাহলে আপনি সেই মেয়েটির সাথে কথা বলতে পারবেন।

বাম্বল (Bumble) এর কিছু স্পেশাল ফিচার

যেহেতু অনলাইন ডেটিং অ্যাপস এর মধ্যে বাম্বল (Bumble) এর ব্যাপক পরিমাণ জনপ্রিয়তা রয়েছে। সেহেতু আপনি যখন এই ডেটিং অ্যাপস টি ব্যবহার করবেন।

তখন আপনি বেশ কিছু স্পেশাল ফিচার লক্ষ্য করতে পারবেন। আর সে গুলো হলো:

  1. যদি আপনি জনপ্রিয় এই ডেটিং অ্যাপসের মধ্যে পেইড সাবস্ক্রিপশন নেন। সেক্ষেত্রে আপনি আপনার প্রোফাইল টি অধিক পরিমাণ মেয়েদের নিকট পৌঁছাতে পারবেন।
  2. তবে আপনি চাইলে এই অ্যাপস টি কোন প্রকার অর্থ ব্যয় না করে একবারে বিনামূল্যে ব্যবহার করতে পারবেন।
  3. এই অ্যাপস এর মধ্যে কোন পুরুষ অন্য আরেক টি মেয়েদের সাথে শুরুতে কথা বলতে পারবে না। বরং মেয়েরা সর্বপ্রথম কথা বলা শুরু করবে।
  4. আর যখন আপনি এই অনলাইন ডেটিং অ্যাপস টি ব্যবহার করবেন। তখন আপনি মোট তিন টি ব্যবহারিক মোড দেখতে পারবেন।
  5. একটা কথা না বললেই নয়, সেটি হল এই অ্যাপস টি হল জেন্ডার নিউট্রাল অ্যাপস।

তো আপনি যদি এই স্পেশাল ফিচার গুলো উপভোগ করতে চান। তাহলে অবশ্যই আপনাকে উপরের এই জনপ্রিয় অনলাইন ডেটিং অ্যাপস টি ব্যবহার করতে হবে।

আর যখন আপনি এই অ্যাপ টি ব্যবহার করবেন। তখন আপনারও অনেক ভালো লাগবে।

আপনি আরোও দেখতে পারেন…

আইল (Aisle)

যারা মূলত ভারতের নাগরিক তাদের জন্য বিশেষ একটি অনলাইন ডেটিং অ্যাপস তৈরি করা হয়েছে। আর সেই অনলাইন ডেটিং এপস এর নাম হলো আইল (Aisle).

তবে এটি হলো নতুন একটি ডেটিং অ্যাপস। আর আপনি যদি একজন নতুন ব্যক্তি হয়ে থাকেন।

তাহলে এই অ্যাপটি আপনার জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে। তো আপনি যখন একজন নতুন ব্যক্তি হিসেবে এই অনলাইন ডেটিং অ্যাপটি ব্যবহার করবেন।

তখন আপনি দেখতে পারবেন যে শুরুতেই এই অ্যাপসের মধ্যে হিন্দি ভাষা সিলেক্ট করা আছে।

এবং আপনি যদি ইন্ডিয়ান হয়ে থাকেন। তাহলে আপনি খুব সহজেই আপনার মনের মতো মানুষ কে খুঁজে নিতে পারবেন। সেক্ষেত্রে আপনি যদি একজন মেয়ে হয়ে থাকেন।

তাহলে আপনি আপনার পছন্দের মত ছেলে খুঁজতে পারবেন। এবং আপনি যদি ছেলে হয়ে থাকেন।

তাহলে আপনি আপনার পছন্দমত মেয়ে খুঁজে নিতে পারবেন। এর পাশাপাশি এই অ্যাপস এর মধ্যে আরো বেশ কিছু ফিচার রয়েছে।

চলুন এবার তাহলে সেই ফিচার গুলো সম্পর্কে জেনে নেওয়া যাক।

আইল (Aisle) এর কিছু স্পেশাল ফিচার

যখন আপনি অনলাইন ডেটিং অ্যাপস হিসেবে আইল (Aisle) কে ব্যবহার করবেন। তখন আপনি বেশ কিছু স্পেশাল ফিচার লক্ষ্য করতে পারবেন। যেমন:

  1. এই অ্যাপস এর মধ্যে আপনি এমন একটি ফিচার দেখতে পারবেন। যে ফিচারটি কে কাজে লাগিয়ে আপনি শুধুমাত্র গোটা বিশ্বের ভারতীয় মানুষের সাথে যোগাযোগ করতে পারবেন।
  2. এই অ্যাপস এর মধ্যে আপনাকে কোন প্রকার অর্থ প্রদান করতে হবে না। অথচ তারপরেও আপনি আপনার পছন্দ মতো মনের মানুষ কে খুঁজে নিতে পারবেন।
  3. নতুন নতুন ব্যক্তিদের ক্ষেত্রে এই অ্যাপ টি অনেক হেল্পফুল হবে। কারণ অন্যান্য অ্যাপসের তুলনায় এই অনলাইন ডেটিং অ্যাপস টি ব্যবহার করা অনেক সহজ।

তো আপনি যদি একজন নতুন ব্যক্তি হিসেবে কোন অনলাইন ডেটিং অ্যাপস ব্যবহার করতে চান। তাহলে আপনি অন্তত পক্ষে একবার হলেও এই অ্যাপ টি ব্যবহার করে দেখতে পারেন।

আশা করি এই অ্যাপ টি আপনার অনেক বেশি ভালো লাগবে।

ওকেকিউপিড (OkCupid)

অন্যান্য অনলাইন ডেটিং অ্যাপস গুলোর মত ওকেকিউপিড (OkCupid) হলো ব্যাপক জনপ্রিয় একটি ডেটিং অ্যাপস।

মূলত এটি ভারতের মধ্যে প্রচুর পরিমাণে জনপ্রিয়তা অর্জন করতে পেরেছে। যদি আপনি অন্যান্য ডেটিং অ্যাপস গুলোর দিকে লক্ষ্য করেন।

তাহলে দেখতে পারবেন যে, সে গুলো তে মূলত একটি প্রোফাইল এ থাকা পিকচার এর মাধ্যমে।

অন্য আরেক জন ব্যক্তি আপনার সাথে বন্ধুত্ব করার জন্য আগ্রহ প্রকাশ করবে। কিন্তু যখন আপনি ওকেকিউপিড (OkCupid) নামক ডেটিং অ্যাপস টি ব্যবহার করবেন।

তখন এখানে আপনাকে বিভিন্ন ধরনের প্রশ্ন করা হবে। এবং যখন আপনি সেই প্রশ্ন গুলোর সঠিক উত্তর প্রদান করবেন।

তখন আপনার এই উত্তরের উপর ভিত্তি করে আপনার পছন্দের মানুষ গুলো কে রেকোমান্ড করা হবে।

আর সেখান থেকে আপনি আপনার পছন্দের মত মানুষ কে বাছাই করে নিতে পারবেন। এবং তাদের সাথে বন্ধুত্ব করতে পারবেন।

আর এইসব সুবিধা গুলো থাকার কারণে উক্ত ডেটিং অ্যাপস টি আরো বেশি জনপ্রিয়তা পেতে শুরু করেছে। সবচেয়ে ভালো লাগার মত বিষয় হলো।

যে, আপনি যখন এই অনলাইন ডেটিং অ্যাপস টি ব্যবহার করবেন। তখন আপনাকে কোন প্রকারের বিজ্ঞাপন দেখানো হবে না।

এর পাশাপাশি আপনি যদি এই Dating Apps ব্যবহার করেন। তাহলে আপনি বিরক্তি কর মানুষ গুলো কে ব্লক লিস্টে রেখে দিতে পারবেন।

যার ফলে সেই মানুষ গুলো আর আপনার প্রোফাইল খুঁজে পাবে না।

হ্যাপেন (Happn)

আমাদের মধ্যে এমন অনেক মানুষ আছেন। যারা মূলত অনলাইনের মধ্যে অনেক ভালো একটি ডেটিং অ্যাপস খুঁজে থাকেন।

তো আপনি যদি এমন ভালো অনলাইন ডেটিং অ্যাপস খুঁজে থাকেন। তাহলে আমি আপনাকে বলব যে আপনার অবশ্যই হ্যাপেন (Happn) নামক অ্যাপ টি ব্যবহার করে দেখা উচিত।

কারণ এই অ্যাপসের মধ্যে আপনি সব চমৎকার ফিচার দেখতে পারবেন। যেমন ধরুন, আপনি রাস্তায় চলাচল করছেন।

এবং সেই সময় আপনার হঠাৎ করে কোনো একটি মানুষ কে খুব পছন্দ লাগলো।

এবং তার প্রতি আপনি অনেক ক্রাশ খেলেন। কিন্তু যখন আপনি বাসায় গেলেন তখন দেখলেন।

যে, এই হ্যাপেন (Happn) নামক অ্যাপস এর মধ্যে সেই পছন্দের মানুষের প্রোফাইল টি শো করছে। তাহলে বিষয়টা কেমন হয় বলুন তো, নিশ্চয়ই অনেক ভালো হবে। তাইনা?

আর আপনি এই ধরনের চমৎকার সব ফিচার পাবেন এই অ্যাপসের মাধ্যমে।

তবে সে ক্ষেত্রে আপনার দুজন ব্যক্তির হ্যাপেন (Happn) নামক ডেটিং অ্যাপসের মধ্যে একাউন্ট থাকতে হবে।

তাহলে আপনি অন্যান্য ব্যক্তির প্রোফাইল দেখতে পারবেন। অন্যথায় আপনি কোন ভাবে তার প্রোফাইল দেখতে পারবেন না। আর যখন আপনি এই অ্যাপস টি ব্যবহার করবেন।

তখন আপনি আরও একটি মজার বিষয় লক্ষ্য করতে পারবেন।

সেটি হল এই অ্যাপ টি ব্যবহার করার সময় যদি আপনার কোনো মানুষ কে অনেক ভালো লাগে। তখন আপনি তার সাথে সরাসরি কথা বলতে পারবেন।

হাইঞ্জ (Hinge)

Hinge হল একটি ডেটিং অ্যাপ যা 2012 সালে চালু হয়েছে ৷ অ্যাপটি অনন্য যে এটি আপনার Facebook বন্ধুদের ব্যবহার করে সম্ভাব্য ম্যাচগুলির সাথে আপনাকে সংযুক্ত করতে ৷

এটি আপনাকে দেখতে দেয় যে আপনার পারস্পরিক বন্ধু আছে কি না এবং একটি আরও আরামদায়ক প্রথম তারিখ সেট আপ করতে সহায়তা করে।

লঞ্চ করার পর থেকে, Hinge লোকেদের স্থায়ী সম্পর্ক খুঁজে পেতে সাহায্য করতে সফল হয়েছে।

আসলে, অ্যাপটির ট্যাগলাইন হল “রিলেশনশিপ অ্যাপ।” এবং এটি শুধুমাত্র রোমান্টিক সম্পর্কের জন্য নয়।

Hinge আপনাকে নতুন বন্ধু খুঁজে পেতে এবং আপনার সামাজিক বৃত্ত প্রসারিত করতে সাহায্য করতে পারে।

আপনি যদি লোকেদের সাথে  পরিচিত হওয়ার জন্য একটি ভিন্ন উপায় খুঁজছেন তবে Hinge কে ব্যবহার করে দেখুন। এটি আপনার নেওয়া সেরা সিদ্ধান্ত হতে পারে।

আপনি যদি Tinder-এর বিকল্প খুঁজছেন যাতে শত শত প্রোফাইলের মাধ্যমে সোয়াইপ করা জড়িত না থাকে, তাহলে Hinge কে চেষ্টা করে দেখুন।

টিন্ডার (Tinder)

অস্বীকার করার কিছু নেই যে ডেটিং অ্যাপ আমাদের ডেট করার পদ্ধতিতে সহজ করেছে। কিন্তু, সেখানে অনেকগুলি বিকল্প আছে, কোনটি আপনার জন্য সঠিক তা জানা কঠিন হতে পারে।

এই জনপ্রিয় ডেটিং অ্যাপটি দ্রুত নতুন লোকেদের সাথে দেখা করার সবচেয়ে ব্যবহৃত উপায়গুলির মধ্যে একটি হয়ে উঠেছে।

এর সহজ ইন্টারফেস এবং সহজে ব্যবহারযোগ্য বৈশিষ্ট্যগুলির সাথে, Tinder অনলাইন ডেটিং বিশ্বে ঝড় তুলেছে।

আপনি একটি নৈমিত্তিক হুকআপ বা আপনার আত্মার সঙ্গী খুঁজছেন কিনা, Tinder আপনার এলাকার লোকেদের সাথে সংযোগ করা সহজ করে তোলে।

আপনি যদি অনলাইন ডেটিং-এর জগতে নতুন হয়ে থাকেন, তাহলে শুরু করার জন্য Tinder হল উপযুক্ত জায়গা।

গ্রাইন্ডার (Grindr)

আপনি যদি অবিবাহিত হন এবং গ্রিন্ডারের সাথে পরিচিত না হন তবে আপনি একটি প্রযুক্তির বাইরে বসবাস করছেন।

তবে আপনি প্রেম খোঁজার জন্য এটি ব্যবহার না করলেও, আপনি সম্ভবত সমকামী এবং উভকামী পুরুষদের জন্য জনপ্রিয় ডেটিং অ্যাপের কথা শুনেছেন।

Grindr হল একটি বিনামূল্যের ডেটিং অ্যাপ যা ব্যবহারকারীদের তাদের এলাকার সম্ভাব্য সঙ্গীদের সাথে মেলাতে GPS অবস্থান ডেটা ব্যবহার করে।

অ্যাপটি iOS এবং Android ডিভাইসে পাওয়া যায় এবং এটি সমকামী পুরুষদের জন্য সবচেয়ে জনপ্রিয় ডেটিং অ্যাপগুলির মধ্যে একটি।

2009 সালে চালু হওয়ার পর থেকে, Grindr সমকামী, দ্বি, কুইয়ার এবং ট্রান্স পুরুষদের জন্য বৃহত্তম সামাজিক নেটওয়ার্কিং অ্যাপ হয়ে উঠেছে।

ব্লুমবার্গের 2018 সালের একটি প্রতিবেদন অনুসারে, 192টি দেশে গ্রিন্ডারের 27 মিলিয়নেরও বেশি ব্যবহারকারী রয়েছে।

Raya ডেটিং এপ

রায়া ডেটিং অ্যাপ হল আইফোন এবং অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারীদের জন্য একটি অনলাইন ডেটিং অ্যাপ্লিকেশন। অ্যাপটি Raya App LLC দ্বারা 2014 সালে তৈরি করা হয়েছিল।

Raya হল সারা বিশ্বের মানুষের একটি ব্যক্তিগত, সদস্যতা-ভিত্তিক নেটওয়ার্ক। অ্যাপটি সদস্যদের একে অপরের সাথে সংযোগ স্থাপন করতে এবং নতুন সম্পর্ক তৈরি করতে  সাহায্য করে।

Raya ডেটিং অ্যাপ ডাউনলোড এবং ব্যবহার করতে পারবেন বিনামূল্যে।

Clover ডেটিং অ্যাপ

ক্লোভার হল একটি মোবাইল ডেটিং অ্যাপ যা একটি নতুন ক্লোভার প্রোফাইল তৈরি করতে ব্যবহারকারীর Facebook অ্যাকাউন্ট বা তাদের ইমেল ঠিকানার সাথে সংযোগ করে ৷

এটি ব্যবহারকারীদের নিজের সম্পর্কে ফটো এবং মৌলিক তথ্য সহ একটি প্রোফাইল সেট আপ করতে দেয়।

ব্যবহারকারীরা তারপর তাদের এলাকায় অন্যান্য ব্যবহারকারীদের জন্য অনুসন্ধান করতে পারেন, এবং তাদের প্রোফাইল দেখতে পারেন।

যদি দুইজন ব্যবহারকারী একে অপরকে “লাইক” করেন তবে তারা অ্যাপের মাধ্যমে একে অপরের সাথে চ্যাট করতে পারেন।

ক্লোভারের বৈশিষ্ট্যগুলিও রয়েছে যা ব্যবহারকারীদের তাদের এলাকায় সম্ভাব্য তারিখগুলি খুঁজে পেতে এবং বয়স, লিঙ্গ এবং আগ্রহ অনুসারে তাদের অনুসন্ধান ফলাফলগুলিকে ফিল্টার করতে দেয় ৷

সেরা অনলাইন ডেটিং অ্যাপস

উপরের আলোচনা তে আপনি জনপ্রিয় সব অনলাইন ডেটিং অ্যাপস সম্পর্কে জানতে পেরেছেন।

তবে এগুলো ছাড়াও আপনি আরো অনেক ধরনের ডেটিং অ্যাপস দেখতে পারবেন।

যে গুলো ক্রমাগত ভাবে জনপ্রিয়তা অর্জন করতে শুরু করেছে। আর আপনি চাইলে উপরে উল্লেখিত অনলাইন ডেটিং অ্যাপস গুলো ব্যবহার করার পাশাপাশি।

এই অ্যাপস গুলো ব্যবহার করে দেখতে পারেন। আশা করি এগুলো আপনার অনেক ভালো লাগবে।

চলুন এবার তাহলে জনপ্রিয় সেই অনলাইন ডেটিং অ্যাপস গুলোর তালিকা দেখে নেওয়া যাক।

  1. The League
  2. Plenty of Fish
  3. Coffee Meets Bagel

তো উপরে আপনি বেশ কিছু জনপ্রিয় অনলাইন ডেটিং অ্যাপস এর তালিকা দেখতে পাচ্ছেন। এই তালিকা তে যে অ্যাপস গুলো রয়েছে।

সে গুলো অনেক বেশি ফিচার সমৃদ্ধ। এবং আপনি একজন নতুন ব্যক্তি হিসেবে এই অ্যাপস গুলো ব্যবহার করে।

খুব সহজেই আপনার পছন্দের মানুষ কে খুঁজে নিতে পারবেন।

ডেটিং অ্যাপস নিয়ে কিছু কথা

আমাদের মধ্যে এমন অনেক মানুষ আছেন। যারা মূলত নিজের মনের মানুষ খুঁজে পাওয়ার জন্য এই ধরনের ডেটিং অ্যাপস গুলো ব্যবহার করে থাকে।

তবে আপনি যখন এমন ধরনের অ্যাপস ব্যবহার করবেন। তখন অবশ্যই নিজের প্রাইভেসি এর দিকে লক্ষ রাখবেন। কেননা এমন অনেক ধরনের ডেটিং অ্যাপস আছে।

যে গুলো অন্যের তথ্য হাতিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করে। তো উপরে আপনি যে অনলাইন ডেটিং অ্যাপস গুলোর নাম দেখতে পাচ্ছেন।

আপনি আরোও পড়তে পারেন…

সে গুলো অনেক বিশ্বস্ত এবং জনপ্রিয়। তাই আপনি একবারে নিশ্চিন্তে আপনার মনের মানুষ খুঁজে নেওয়ার জন্য এই ধরনের অনলাইন ডেটিং অ্যাপস গুলো ব্যবহার করতে পারবেন।

তো আমি আমার এই ওয়েবসাইটে টেকনোলজি রিলেটেড বিভিন্ন টিপস এন্ড ট্রিকস শেয়ার করি। যদি আপনি টেক লাভার হয়ে থাকেন।

তাহলে অবশ্যই আমাদের সাথে থাকার চেষ্টা করবেন। সেই সাথে আপনি যদি এই ডেটিং অ্যাপ সম্পর্কিত আরো অজানা কিছু জানতে চান।

তাহলে অবশ্যই নিচে কমেন্ট করে জানিয়ে দিবেন।

আমি আপনার কমেন্ট পাওয়া মাত্রই রিপ্লাই দেওয়ার চেষ্টা করব। দেখা হবে পরবর্তী আর্টিকেলে, সে পর্যন্ত সুস্থ থাকবেন, ভালো থাকবেন। ধন্যবাদ।

Leave a Comment

Your email address will not be published.

HandsUp! কপি করা যাবে না বস!

Scroll to Top
Share via
Copy link
Powered by Social Snap