অ্যাপল কোন দেশের কোম্পানি | অ্যাপল কোম্পানির জনক কে

Apple কোন দেশের কোম্পানি : আমাদের মধ্যে এমন অনেক মানুষ আছেন। যারা আসলে জানতে চায় যে, অ্যাপল কোন দেশের কোম্পানি। তো অ্যাপল হল আমেরিকার একটি কোম্পানি।

অ্যাপল কোন দেশের কোম্পানি | অ্যাপল কোম্পানির জনক কে
অ্যাপল কোন দেশের কোম্পানি

আর এই বিষয় টি আপনি একবারে নিশ্চিত হতে পারবেন তখন। যখন আপনি জানতে পারবেন যে, Apple নামক company এর সদর দপ্তর।

যুক্তরাষ্ট্র এর ক্যালিফোর্নিয়া নামক একটি শহরের মধ্যে অবস্থিত। আর আপনাকে এটাও বলে রাখি ।যে অ্যাপল এর প্রতিষ্ঠাতা হলেন স্টিভ জব নামক একজন ব্যক্তি।

তো সংক্ষিপ্ত আকারে অ্যাপল কোম্পানি সম্পর্কে বলা সম্ভব নয়। তাই চলুন এবার অ্যাপল কোম্পানি সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য গুলো জেনে নেওয়া যাক।

অ্যাপল কি? What is Apple?

অ্যাপল কোন দেশের কোম্পানি। – সেটা তো আপনি উপরের আলোচনা থেকে জানতে পারলেন। এখন যদি আপনাকে প্রশ্ন করা হয় যে বলুন তো অ্যাপল কি।

তাহলে কি আপনি সেই প্রশ্নের সঠিক উত্তর দিতে পারবেন? থাক আপনাকে কোন প্রশ্নের উত্তর দিতে হবে না। বরং আমি আপনাকে খুব সহজ ভাবে বুঝিয়ে বলছি যে, অ্যাপল আসলে কি (What is Apple).

আপনি আরোও জানতে পারবেন…

তো আপনার বোঝার সুবিধার্থে বলে রাখি যে। অ্যাপল হলো গোটা বিশ্বের মধ্যে সবচেয়ে জনপ্রিয় এবং বিশ্বস্ত একটি মোবাইল প্রস্তুত কারক প্রতিষ্ঠান।

যদি আপনি বিশ্বের মোবাইল কোম্পানির তালিকার দিকে লক্ষ্য করেন। তাহলে আপনি স্পষ্ট দেখতে পারবেন যে। তাদের মধ্যে সবার শীর্ষে রয়েছে অ্যাপল নামক এই বৃহৎ কোম্পানি টি।

আর আমাদের পার্শ্ববর্তী দেশ ভারতের মধ্যে এই অ্যাপল এর জনপ্রিয়তা সবার শীর্ষে রয়েছে। হয়তোবা আপনার বিশ্বাস করতে একটু কষ্ট হবে।

কিন্তু এটাই সত্যি যে, আজকের দিনে ভারতের অধিকাংশ মানুষ। অ্যাপল এর স্মার্টফোন ব্যবহার করার প্রতি আকৃষ্ট হচ্ছে। কারণ এটা আমরা সবাই বুঝতে পারি যে। পৃথিবীর মধ্যে সবচেয়ে বৃহত্তম একটি স্মার্টফোন নির্মাতা কোম্পানি হল, অ্যাপল।

অ্যাপল কোন দেশের কোম্পানি?

আলোচনার শুরুতেই আমি আপনাকে জানিয়ে দিয়েছি যে। অ্যাপল হলো আমেরিকার একটি কোম্পানি।

কারন এই অ্যাপল নামক জনপ্রিয় কোম্পানির  সদর দপ্তর এর নাম হল, যুক্তরাষ্ট্র ক্যালিফোর্নিয়া। বর্তমান সময়ে আজকে আমরা অ্যাপল নামক এই জনপ্রিয় কোম্পানির যেমন জনপ্রিয়তা দেখতে পাচ্ছি।

তার মূলে যে একজন ব্যক্তি রয়েছে। সেই ব্যক্তির নাম, হল স্টিভ জব। কারণ ইনি হলেন এমন একজন ব্যক্তি, যিনি অ্যাপল এর সূচনা করেছিলেন।

আর স্টিভ জব এর সাথে আরো দুজন ব্যক্তি এই অ্যাপল নামক কোম্পানির সূচনা লগ্নে জড়িত ছিলেন। সেই দুজন ব্যক্তির নাম হল, স্টিভ ওজনিয়াক এবং রোনাল্ড ওয়েন।

আর আপনি যদি বর্তমান সময়ে অ্যাপেল এর দিকে লক্ষ্য করেন। তাহলে বেশ ভালোভাবে দেখতে পারবেন।

যে এটি হলো বর্তমান বিশ্বের সবচেয়ে বৃহৎ এবং স্বনামধন্য একটি মোবাইল প্রস্তুতকারক কোম্পানি।

অ্যাপল কোম্পানির মালিক কে?

উপরের আলোচনা থেকে আপনি জানতে পারলেন যে। অ্যাপল কোন দেশের কোম্পানি। এবং সেখানে আমি আপনাকে স্পষ্ট করে বলে দিয়েছি।

যে অ্যাপল হলো আমেরিকার একটি কোম্পানি। আর এই বিষয় টি জানার পরে এখন অনেকের মনে একটি প্রশ্ন জেগে থাকবে।

আর সেই প্রশ্ন টি হল যে, অ্যাপল কোম্পানির মালিক কে। মূলত এবার আমি আপনাকে সেই বিষয় টি সম্পর্কে জানিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করব।

যার মাধ্যমে আপনি জানতে পারবেন যে। অ্যাপল কোম্পানির মালিক এর নাম কি। সময় টা ছিল ১৯৭৬ সালের এপ্রিল মাসের ১ তারিখ।

আর সেই সময়ে মোট তিন জন ব্যক্তি ছিলেন। যাদের হাত ধরে এই অ্যাপল কোম্পানির যাত্রা শুরু হয়েছিল। আর সেই তিন জন ব্যক্তির নাম হল, স্টিভ জবস, রোনাল্ড ওয়েন, এবং স্টিভ ওজনিয়াক।

আর এই তিনজন ব্যক্তির মধ্যে সর্ব প্রধান ছিলেন স্টিভ জবস। যখন এই কোম্পানির সর্বপ্রথম সূচনা হয়েছিল। তখন এই কোম্পানি টি কিছুদিন চলার পরেই রোনাল্ড উয়েন নিজেই এই কোম্পানি ছেড়ে একবারে চলে যান।

আর এই ব্যক্তি যখন অ্যাপল নামক কোম্পানি ছেড়ে চলে যান। তখন এই কোম্পানি তে তার যে শেয়ার ছিল। সেটি তিনি মাত্র ৮০০ মার্কিন ডলার এর বিনিময়ে।

বাকি দুইজন ব্যক্তির কাছে বিক্রি করে দেন। মূলত তখন থেকেই এই স্টিভ জবস নামক ব্যক্তিটি একজন সফল ব্যবসায়ী হিসেবে নিজেকে পরিচিত করতে পেরেছেন।

এর পাশাপাশি তিনি একজন দক্ষ ডিজাইনার। সেই সাথে একজন সফল উদ্ভাবক ছিলেন।

অ্যাপল কোম্পানির সিইও কে?

আমরা অধিকাংশ মানুষ জানি যে। বর্তমান বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় মোবাইল নির্মাতা কোম্পানি অ্যাপল এর জনক হলেন স্টিভ জবস।

কিন্তু এখন যদি আপনাকে প্রশ্ন করা হয় যে। অ্যাপল কোম্পানির সিইও এর নাম কি। তাহলে কি আপনি এই প্রশ্নের সঠিক উত্তর দিতে পারবেন।

থাক! আপনাকে কোন প্রশ্নের উত্তর দিতে হবে না। বরং আমি আপনাকে এই প্রশ্নের উত্তর বলে দিচ্ছি। আর উত্তরে আমি আপনাকে বলব যে। অ্যাপল কোম্পানির সিইও এর নাম হল, টিম কুক।

এখন হয়তোবা আপনার মনে একটি প্রশ্ন জেগে থাকতে পারে। আর সেই প্রশ্ন টি হল যে। আমরা এতদিন জেনে এসেছি অ্যাপল কোম্পানির মালিক হলো স্টিভ জবস।

কিন্তু বর্তমানে টিম কুক নামক ব্যক্তি কিভাবে অ্যাপল কোম্পানির সিইও হলেন। যদি আপনার মনে এই ধরনের প্রশ্ন জেগে থাকে।

তাহলে আমি বলব যে স্টিভ জবস মূলত এমন একজন ব্যক্তি ছিলেন। যার বিভিন্ন রকমের গুনাগুন ছিল।

অপরদিকে এই স্টিভ জবস নামক ব্যক্তির মধ্যে কঠোর পরিশ্রম করার মত মানসিকতা ছিল। যার কারণে তিনি একাধারে অ্যাপল কোম্পানি এর বিভিন্ন প্রকারের প্রোডাক্ট তৈরি করতে সক্ষম হয়েছেন।

কিন্তু দুঃখজনক হলেও সত্য যে। অ্যাপল কোম্পানি যখন গোটা বিশ্ব জুড়ে রাজত্ব করা শুরু করছিল। ঠিক সেই সময়ে অ্যাপল কোম্পানির মালিক স্টিভ জবস ক্যান্সারের কারণে মারা যান।

এবং যখন তিনি মৃত্যুবরণ করেন। তখন কোম্পানির হাল ধরার জন্য টিম কুক নামক একজন ব্যক্তির আগমন ঘটে। আর তিনি পরবর্তী সময়ে এই অ্যাপল কোম্পানি পরিচালনা করার দায়িত্ব নেন।

এবং বর্তমান সময়ে আপল কোম্পানির সিইও এবং মালিক এর নাম হলো টিম কুক। আর বলা বাহুল্য যে, মার্কিন সিকিউরিটিজ এন্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন এর ভিত্তিতে।

অ্যাপল কোম্পানির মালিক অর্থাৎ টিম কুক অ্যাপেল এর বৃহত্তম শেয়ার হোল্ডার হিসেবে আছেন।

অ্যাপল কোম্পানি কি কি তৈরি করে?

প্রিয় পাঠক, উপরের আলোচনা থেকে আপনি জানতে পারলেন যে। অ্যাপল  কোন দেশের কোম্পানি এবং অ্যাপল কোম্পানির মালিক কে।

তো এই বিষয় গুলো জানার পাশাপাশি আপনাকে আরও একটি বিষয়ে জেনে নিতে হবে। সেটি হল, অ্যাপল কোম্পানি কি কি তৈরি করে।

অর্থাৎ আপনি আমাদের মধ্যে এমন অনেক মানুষ কে খুঁজে পাবেন। যারা মনে করে থাকে যে, অ্যাপল কোম্পানি শুধু মাত্র স্মার্টফোন তৈরি করে।

যারা আসলে এই বিষয় টি ভেবে থাকেন। তাদের ভাবনা সম্পূর্ণ ভুল। কারণ স্মার্টফোন বাদেও এই জনপ্রিয় অ্যাপল নামক কোম্পানি টি আরো বিভিন্ন ধরনের ইলেকট্রনিক্স পণ্য তৈরি করে থাকে।

আপনি আরোও জানুন…

আর বর্তমান সময়ে আপনি যেমন এই গোটা পৃথিবীর মধ্যে অ্যাপল কোম্পানির জনপ্রিয়তা দেখতে পাচ্ছেন।

ঠিক একই ভাবে অ্যাপল কোম্পানি থেকে উৎপাদিত হওয়া অন্যান্য পণ্য গুলোর, যথেষ্ট পরিমাণে চাহিদা রয়েছে। আর সেই অ্যাপেল কোম্পানি থেকে তৈরি করা পণ্য গুলো হলো:

  1. এয়ার ট্যাগ, 
  2. আইপ্যাড 
  3. ম্যাক অপারেটিং সিস্টেম 
  4. হোম পড 
  5. অ্যাপল টিভি 
  6. লজিক প্রো 
  7. ইয়ারফোন 
  8. চার্জার 
  9. আইপ্যাড 
  10. আইপড 
  11. অ্যাপল পেন্সিল 
  12. আইফোন 
  13. আই ও এস

তো উপর আপনি মোট যত গুলো প্রোডাক্ট দেখতে পাচ্ছেন। এ গুলো হলো অ্যাপল এর নিজস্ব প্রোডাক্ট।

এবং বর্তমান বিশ্বের অ্যাপল এর প্রত্যেক টি প্রোডাক্ট ব্যাপক ভাবে জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে।

এবং আপনি যদি এই প্রোডাক্ট গুলো কিনতে চান। তাহলে আপনাকে অনেক হাই বাজেট দিয়ে উক্ত আপেলের প্রোডাক্ট গুলো কিনতে হবে।

Apple এর ইতিহাস

প্রিয় বন্ধু, এবার আমি আপনাকে অ্যাপল এর ইতিহাস জানিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করব। আমরা সবাই জানি যে, বর্তমান বিশ্বের সবচেয়ে স্বনামধন্য এবং বৃহৎ একটি স্মার্টফোন প্রস্তুত কারক কোম্পানির নাম হলো অ্যাপল।

আর এই অ্যাপল কোম্পানি থেকে যে সকল প্রোডাক্ট তৈরি হয়। সেই প্রোডাক্ট গুলো কেনার জন্য অনেক হাই বাজেটের প্রয়োজন হয়।

সত্যি বলতে এই বিষয় গুলো আমাদের সবার জানা রয়েছে। কিন্তু আপনি কি জানেন, এই অ্যাপল কোম্পানির ইতিহাস সম্পর্কে।

দেখুন আজকের এই জনপ্রিয় কোম্পানি টি কিন্তু একদিন বা দুই দিনের মধ্যেই এত বেশি জনপ্রিয় হতে পারে নি। বরং এর পেছনে রয়েছে বিরাট একটি ইতিহাস।

আর এবার আমি সেই অ্যাপেল কোম্পানির বিরাট ইতিহাস কে সংক্ষেপে তুলে ধরার চেষ্টা করব।

মূলত আজকের এই জনপ্রিয় অ্যাপল কোম্পানির সর্বপ্রথম সূচনা হয়েছিল এপ্রিল মাসের ১ তারিখে ১৯৭৬ সালে। আর এই অ্যাপল নামক কোম্পানিটির তৈরি হওয়ার পেছনে মোট তিনজন ব্যক্তির হাত রয়েছে।

তবে সেসব ব্যক্তিদের মধ্যে স্টিভ জব হলো অন্যতম। কারণ তিনি অক্লান্ত পরিশ্রম এবং বিচক্ষণতার মাধ্যমে আজকের এই অ্যাপল কোম্পানি কে।

পৃথিবীর বুকে নাম লেখা তে পেরেছেন। যখন এই অ্যাপল কোম্পানির শুরু হয়েছিল। তখন সবাই কম্পিউটার তৈরি করার কথা ভেবেছিল।

অর্থাৎ তারা অ্যাপল কোম্পানি থেকে শুধুমাত্র কম্পিউটার তৈরি করবে। এবং সেই কম্পিউটার গুলো গোটা বিশ্বের মার্কেটে বিস্তৃত করবে।

তবে তারা যখন সর্বপ্রথম কম্পিউটার আবিষ্কার করেছিল। সেই কম্পিউটার এর আকার অনেক বড় ছিল। ঠিক তখনই অ্যাপল মানুষের জন্য ব্যবহারযোগ্য এবং বহনযোগ্য কম্পিউটার তৈরি করার কথা ভেবেছিল।

তবে এই অ্যাপল নামক কোম্পানিটির জনপ্রিয়তা শুরু হয়েছিল একটি অপারেটিং সিস্টেম তৈরি করার মাধ্যমে। যখন তারা মানুষের জন্য বহণযোগ্য একটি কম্পিউটার তৈরি করার চিন্তা ভাবনা করছিল।

ঠিক সেই সময় তারা তাদের প্রথম একটি অপারেটিং সিস্টেম চালু করে। যার নাম হলো, মেকিনটোস। আর অবাক করার মত বিষয় হলো .

আপনি আরোও জানতে পারেন…

যে সেই সময়ে তাদের তৈরি করা এই ম্যাকিনটোস নামক অপারেটিং সিস্টেম টি প্রচুর পরিমাণে জনপ্রিয় হয়ে ওঠে।

এবং এটি হলো অ্যাপেল এর নিজস্ব একটি অপারেটিং সিস্টেমম যার মাধ্যমে আপনি অ্যাপল এর স্মার্টফোন গুলো কে অপারেট করতে পারবেন।

এপেল কোম্পানির মালিক কে

এপেল কর্তৃপক্ষের মালিক হলো শেষ হাল-নাগাদ স্টিভ জবস। তবে তাঁর মৃত্যুর পরে এপেল কোম্পানি পরিচালনা করতে স্টিভ জবসের সহ-সংস্থাপক টিম ও অন্যান্য উচ্চতর কর্মচারীর হাতে পরে।

অ্যাপল কম্পিউটার প্রতিষ্ঠিত হয় কত সালে

অ্যাপল কম্পিউটার ১ এপ্রিল, ১৯৭৬ সালে স্টিভ জবস, স্টিভ ওজনিয়াক এবং রোনাল্ড ওয়ায়স দ্বারা প্রতিষ্ঠিত হয়। তার প্রথম পণ্য ছিল পার্সোনাল কম্পিউটার অ্যাপল 1।

অ্যাপল নিয়ে আমাদের শেষ কথা

প্রিয় বন্ধুরা, আমাদের মধ্যে এমন অনেক মানুষ আছেন। যারা আসলে জানতে চায় যে, অ্যাপল কোন দেশের কোম্পানি। এবং অ্যাপল কোম্পানির মালিক কে।

আর তারা যেন এই প্রশ্ন গুলোর সঠিক উত্তর সম্পর্কে জানতে পারে। সে কারণে আজকের এই আর্টিকেল টি লেখা হয়েছে। কারন আজকের এই আর্টিকেল এর মাধ্যমে।

আমি আপনাকে জানিয়ে দিয়েছি, অ্যাপেল কোন দেশের কোম্পানি। এর পাশাপাশি এই অ্যাপল কোম্পানির যেসব অজানা বিষয় রয়েছে।

তার প্রত্যেক টা বিষয় কে নিয়ে আজকে বিস্তারিত আলোচনা করেছি। আশা করি আজকের এই আলোচনা টি আপনার অনেক বেশি ভালো লেগেছে।

আর এই ধরনের গুরুত্বপূর্ণ তথ্য গুলো সবার আগে পেতে চাইলে। অবশ্যই আমাদের ওয়েবসাইটে নিয়মিত ভিজিট করবেন। আর্টিকেলের এই পর্যন্ত আসার জন্য আপনাকে জানাচ্ছি অসংখ্য ধন্যবাদ।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top
Share via
Copy link